রান্নার গ্যাসের দাম নিয়ে সরকারি নীতিতেই অভিযোগ উঠেছে গরমিলের। আর, তার জেরেই প্রতি মাসে এলপিজি সিলিন্ডারের দাম ৪ টাকা করে বাড়ানোর সিদ্ধান্ত থেকে পিছু হটল নরেন্দ্র মোদী সরকার।

ভর্তুকি শূন্যে নামিয়ে আনতে ২০১৭ সালের জুন থেকে প্রতি মাসে এলপিজি সিলিন্ডারের দাম ৪ টাকা করে (যুক্তমূল্য কর বাদে) বাড়ানোর নির্দেশ দিয়েছিল কেন্দ্র। কিন্তু সরকারি সূত্রের খবর, অক্টোবরেই সেখান থেকে পিছু হটে কেন্দ্র। সংশ্লিষ্ট মহলের যুক্তি নিখরচায় গ্যাস সংযোগ দিতে চালু হওয়া প্রধানমন্ত্রী উজ্জ্বলা যোজনার লক্ষ্য গরিব পরিবারে গ্যাসের ব্যবহার বাড়ানো। প্রতি মাসে ৪ টাকা করে দাম বাড়লে তাঁদের কাছে সরকারের নীতি সম্পর্কে ভুল সঙ্কেত যাবে। সরকারি নীতির এই বৈপরীত্য যাতে প্রকাশ্যে না-আসে, সেই জন্যই মাসে মাসে দাম বাড়ানো থেকে কেন্দ্র সরে আসে বলে সংশ্লিষ্ট সূত্রে খবর। সেই কারণে ইন্ডিয়ান অয়েল, ভারত পেট্রোলিয়াম বা হিন্দুস্তান পেট্রোলিয়াম, কোনও সংস্থাই অক্টোবর থেকে ৪ টাকা করে মাসে দাম বাড়ায়নি। তবে তার পরেও কর বাড়ায় ভর্তুকিযুক্ত সিলিন্ডারের দাম বেড়েছে বলে সরকারি সূত্রে খবর।

এর আগে গৃহস্থালিতে ব্যবহারের সিলিন্ডারের দাম ২০১৬-র জুলাই থেকে মাসে ২ টাকা করে বাড়াতে বলে কেন্দ্র। সেই অনুযায়ী সংস্থাগুলি ১০ বার দাম বাড়ায়। তার পর এ বছর ৩০ মে-র নির্দেশে জুন থেকে ৪ টাকা করে দর বাড়াতে বলা হয়। কিন্তু সংশ্লিষ্ট সূত্রের ইঙ্গিত, বহুল প্রচারিত উজ্জ্বলা যোজনার লক্ষ্যের সঙ্গে এই নীতি সামঞ্জস্যপূর্ণ নয় বলেই মত কেন্দ্রের।