পথ-নিরাপত্তা বাড়াতে পুলিশের পরামর্শে যাত্রীদের বাইপাস পারাপারের জন্য প্রস্তাবিত নিউ গড়িয়া-এয়ারপোর্টের স্টেশনগুলিতে পৃথক পথ তৈরির পরিকল্পনা করছেন মেট্রো রেল কর্তৃপক্ষ।

পুলিশ সূত্রের খবর, ওই প্রস্তাবিত মেট্রোর মোট পথ ৩২ কিমি। হাইল্যান্ড পার্ক থেকে রুবি পর্যন্ত বাইপাসে চারটি স্টেশন থাকছে। রাস্তার উপরে স্তম্ভ গড়ে স্টেশনগুলি হচ্ছে। স্টেশন থেকে বেরিয়ে যাত্রীদের বাইপাসের মতো রাস্তা পারাপারের পরিকল্পনা ছিল না প্রস্তাবিত ওই স্টেশনগুলিতে। সেই ব্যবস্থা করার জন্য মেট্রো কর্তৃপক্ষের কাছে প্রস্তাব পাঠিয়েছিল কলকাতা ট্র্যাফিক পুলিশ। লালবাজার জানিয়েছে, তাতে সাড়া দিয়ে মেট্রো কর্তৃপক্ষ বুধবার ট্র্যাফিক কর্তাদের নিয়ে প্রস্তাবিত সত্যজিৎ রায় স্টেশন (হাইল্যান্ড পার্ক) পরিদর্শনে যান। লালবাজারের দাবি, পুলিশের প্রস্তাব মেনে রাস্তার দু’ধারে ওঠা-নামার চলমান সিঁড়ি-সহ একাধিক ব্যবস্থা করছেন মেট্রো কর্তৃপক্ষ। ট্র্যাফিক পুলিশের ডেপুটি কমিশনার (দক্ষিণ), সূর্যপ্রতাপ যাদব জানান, মেট্রো কর্তৃপক্ষের সঙ্গে স্টেশন পরিদর্শন করে পথচারীদের জন্য আর কী ব্যবস্থা নেওয়া যায়, আলোচনা হয়েছে।

মেট্রো চালু হলে বাইপাসের ওই চার মেট্রো স্টেশনের যাত্রীরা কী ভাবে রাস্তা পারাপার করবেন?

পুলিশ সূত্রের খবর, বর্তমানে কাজের সুবিধায় ওই চারটি মেট্রো স্টেশনের কর্মীদের এক প্ল্যাটফর্ম থেকে অন্য প্ল্যাটফর্মে যাতায়াতের আলাদা পথ রয়েছে। সেই পথই খুলে দেওয়া হবে যাত্রীদের জন্য। তাঁরা বাইপাসে না নেমে উপর দিয়ে রাস্তার দুই প্রান্তে যাতায়াত করতে পারবেন। এ দিন মেট্রোর নির্মাণ সংস্থা রেল বিকাশ নিগম লিমিটেডের এক আধিকারিক জানান, মেট্রোর যাত্রীদের নিরাপত্তার বিষয়ে পুলিশের সঙ্গে বুধবার আলোচনা হয়েছে। চলমান সিঁড়ির বিষয় কলকাতা মেট্রো রেলের অধীন। এ নিয়ে মেট্রো রেলের মুখ্য জনসংযোগ আধিকারিক ইন্দ্রাণী বন্দ্যোপাধ্যায় কিছু বলতে চাননি।

লালবাজার সূত্রের খবর, প্রস্তাবিত মেট্রো স্টেশনগুলিতে এক প্ল্যাটফর্ম থেকে অন্য প্ল্যাটফর্মে যেতে গেলে বাইপাস পারাপার করতে হত যাত্রীদের। এর ফলে যান চলাচল ব্যাহত হত। দুর্ঘটনার সম্ভবনাও বাড়ত। ট্র্যাফিক কর্তাদের দাবি, পথ দুর্ঘটনা এবং তার জেরে মৃত্যুর সংখ্যা ক্রমেই বাড়ছে। প্রস্তাবিত মেট্রো চালুর আগেই তাই সতর্ক হতে কর্তৃপক্ষের কাছে ওই আবেদন করা হয়েছিল। লালবাজার জানিয়েছে, বাইপাসের তৃণমূল ভবনের সামনে থেকে চিংড়িঘাটা মোড় পর্যন্ত প্রস্তাবিত মেট্রোর তিনটি স্টেশন পড়ছে। ওই স্টেশনগুলির যাত্রীদের সুবিধার জন্য সাবওয়ে করার প্রস্তাব দেওয়া হয়েছে।