১। নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক। আমার জন্ম  তারিখ ১৯.৬.১৯৯১। বেলা দেড়টা। জন্মস্থান অসমের আমরিং। আমার ভবিষ্যৎ সম্পর্কে জানতে চাই।

 আপনার জন্মকুন্ডলীতে কেন্দ্রস্থানগত এবং উচ্চস্থ বৃহস্পতি। উক্ত কারণবশতঃ আপনি কথায় এবং কাজকর্মে দয়ালু এবং দানশীল। আপনি শুধু বিত্তশালী ও সুন্দরই নন আপনি ভাগ্যবানও বটে। আপনার স্ত্রী হবেন একজন বিখ্যাত মহিলা এবং তাকে নিয়ে আপনি সুখী হবেন। সরকারী অথবা বেসরকারী প্রতিষ্ঠানে আপনি অবশ্যই যুক্ত হবেন। এবং আপনার প্রশাসনিক যোগ্যতা আপনাকে উচ্চপদ লাভে সহায়তা করবে। জনসাধারনকে বোঝানোর ক্ষমতা আপনার আছে।আগামীতে আপনি যদি রাজনৈতিক বা ধর্মীয় ক্ষেত্রে থাকেন তবে জনসাধারনের উপর প্রভাব বিস্তার করবেন। উত্তরাধিকার সূত্রে সম্পত্তি পাওয়া অপেক্ষা আপনি নিজেই বিভিন্ন সূত্র থেকে বিপুল সম্পত্তিবান হবেন।

২। আমি দয়াল পারুই। আমার জন্ম তারিখ ৯.০৯.১৯৮৯। বিকেল ৪টে। আমার চাকরি বিষয়ে জানতে চাই।

 আপনি অন্যান্য দেশের মানুষজনের সঙ্গে কাজকর্মে যুক্ত থাকতে পারেন। তবে বর্তমানে অতিরিক্ত মদকাশক্তি আপনার জীবনহানির কারণ হতে পারে। সর্তক থাকা উচিত। চল্লিশ পেরিয়ে গেলে আপনি প্রকৃতিপক্ষে কর্মক্ষেত্রে সফল হবেন। জনসাধারনের সঙ্গে সংযুক্ত  চাকুরিতে সাফল্য লাভ করবেন।

৩। আমি নকুল স্বর্ণকার। ১৪.১.১৯৮৩ তে আমার জন্ম। রাত ১টা ৪৫ মিনিটে। জন্মস্থান বেলেঘাটা। আমার বাবা-মার স্বাস্থ্য কেমন যাবে?

আপনি বর্তমানে রাহুর দশায় বুধের অন্তদশা ভোগ করছেন। সঙ্গে শনির সাড়ে সাতি চলার দরুন সময় শুভ নয়। শারীরিক, মানসিক, আর্থিক দিকে যথেষ্ট টানাপোড়েন চলবে। গুরুজন হানি ঘটতে পারে। আপনার মায়ের জন্য সমস্যা সৃষ্টি হতে পারে।  

৪। আমার জন্ম ৬.০৯.১৯৭৭। রাত ১টা ৫২ মিনিটে। কলকাতায়। আমি আমার ভবিষ্যৎ জানতে চাই।

আপনার জীবনের মধ্য ও শেষ ভাগ তুলনামুলকভাবে সুফলদায়ী হবে। আপনি অর্থহীনভাবে পরশ্রীকাতরতার শিকার হতে পারেন। আপনি হলেন খোলা মনের মানুষ, যে কারণে সর্তক না হলে বৈবাহিক বিশ্বাসঘাতকতায় পতিত হতে পারেন। আপনার বিবাহিত জীবনে, বিলম্ব অসুবিধা এমনকি বিচ্ছেদও ঘটতে পারে। তবে আপনি আর্থিক ব্যাপারে যত্নবান। আপনাকে অনেকে কৃপন মনে করতে পারে। সঞ্চয়ে আপনার বিঘ্ন ঘটতে পারে। অবশ্য ব্যক্তিগত উদ্যোগের ক্ষেত্রে বা  নিজর ছোট ব্যবসায় সফল হতে পারেন। প্রস্রাব বা হৃদরোগ সংক্রান্ত সমস্যা থেকে  সাবধান থাকতে হবে। আপনি বর্তমানে বৃহস্পতির দশায় বাহুর অন্তদশা ভোগ করছেন। দশা প্রতিকার অবশ্যই করনীয়।

৫।  আমার জন্ম ১১.১২.১৯৯৩। বিকেল  সাড়ে ৫ টায়।  আমি  কতদুর পর্যন্ত পড়াশোনা করতে পারব?  আমি সরকারি চাকরির জন্য প্রস্তুতি নিচ্ছি।  সরকারি কোন কোন বিভাগ গুলো আমার জন্য উপযুক্ত হবে?  কত বছর বয়েসে আমি সরকারি চাকরি পাব?

 আপনি বর্তমানে বুধের মহাদশা ভোগ করছেন। কিন্তু সঙ্গে শনির সাড়ে সাতি চলার দরুন সময় শুভ নয়। সবসময় কপালে কমলা সিঁদুরের ফোঁটা ও হনুমানজীর নাম স্মরণ করা শুভ ফলদায়ক হবে।আপনার জন্মকুন্ডলীতে কিছু বিশেয প্রকারের গ্রহসমম্বয়ের দরুণ শুভ ফলপ্রদ বিদ্যাযোগ বর্তমান রয়েছে। এই যোগ আপনাকে উচ্চতর শিক্ষা এবং পঠনপাঠন উদ্যমে সাফল্য প্রদান করবে।  ভাগ্যনির্ভরশীল নিজ প্রচেষ্টা, অধ্যাবসায় ও আত্মনির্ভরতার ওপর। আপনি ২০১৯ সালের পর সরকারি ক্ষেত্রে যুক্ত হতে পারেন। আপনি অর্থনৈতিক ক্ষেত্র অর্থাৎ ব্যাঙ্ক, ডাক বিভাগ এবং স্বাস্থ্য দপ্তরে চেষ্টা করতে পারেন।

৬।   নাম প্রকাশে অনিচ্ছুক। আমার জন্ম ১০ অক্টোবর,  ১৯৮৪। জন্ম কলকাতায়।  বর্তমানে আমি একটি বেসরকারি সংস্থায় কর্মরত।  ভবিষ্যতে আমার চাকরি ভাগ্য কেমন যাবে জানাবেন।  বিদেশ যাবার যোগ আছে কি?  বিদেশে স্থায়ী ভাবে বাস করতে পারব?  

আপনি নিশ্চিত থাকতে পারেন যে আপনি কোনও বৃহৎ প্রতিষ্ঠান অথবা কোন সরকারি বিভাগে যুক্ত হবেন। আপনার ক্ষেত্রে সন্মুখ শত্রুতার তুলনায় গুপ্ত শত্রুতার ও বিশ্বাসঘাতকতার ব্যাপারে সর্তক থাকা বাঞ্ছনীয়। আপনার জন্মকুন্ডলীতে অধিকাংশ গ্রহই কেন্দ্রগৃহে এবং চররাশিতে রয়েছে। বিশেষতঃ জীবিকার প্রয়োজনে আপনাকে বহুবার ভ্রমন করতে হবে। জীবনে বিদেশে স্থায়ী ভাবে থাকার সুযোগ আশা করা উচিৎ নয়। 

৭।  আমার জন্ম ১৯৮৫ সালের ৫ অক্টোবর। বর্তমানে  প্রবাসী।  আমি মানসিক ভাবে খুবই বিধ্বস্ত অবস্থায় রয়েছি। আমার  বিবাহ ও বিবাহিত জীবন কেমন যাবে?

 বর্তমানে প্রেম বিষয়ে আশাভঙ্গ আপনাকে অবসাদ গ্রস্থ করে তুলতে পারে। আপনার বিবাহ কিছুটা বেশী বয়সে হবে। আপনার বিবাহিত জীবন এবং গৃহ পরিবেশ বিচিত্রভাবে বিকার গ্রস্থ হতে পারে। সময় বিশেষে আপনাদের দুজনার মধ্যে কিছু বির্তকের সৃষ্টি হতে পারে যা নিতান্ত স্বাভাবিক  হিসাবে গ্রহন করা আপনাদের পক্ষে উচিৎ হবে।

৮।  আমার নাম সৌমেন ধর। জন্মস্থান আলিপুরদুয়ার। সময় রাত ৯টা।  ১৯৮৯ সালের ২০নভেম্বর।  আমার বিয়ে কবে হবে? বিবাহিত জীবন কেমন যাবে?

বর্তমানে  আপনার বিবাহ সম্পন্ন হওয়ার প্রবল সম্ভাবনা। আপনার জন্মকুন্ডলীতে লগ্নপতি ও সপ্তমপতি অষ্টকোণ দৃষ্টিতে রয়েছে। এটা এই সম্ভাবনা নির্দেশ করছে যে দৃষ্টিভঙ্গীর পার্থক্যের দরুন আপনাদের মধ্যে কিছুটা অসামঞ্জস্য থাকতে পারে। সময়ের সাথে আপনারা একে অপরকে আরও ভালোভাবে বুঝে উঠতে পারবেন। যা কিনা অবস্থার উন্নতি ঘটাবে। একটু বেশী কুটনীতি প্রয়োগ করতে পারলে তা আপনাদের সম্পর্কের মধ্যে  খানিকটা উষ্ণতা এনে দেবে। আপনি শান্তি ও সামঞ্জস্যের ব্যাপারে সৌভাগ্যবান হবেন।  আকর্ষণীয় চেহারা সম্পন্ন উজ্বল সন্তান আপনার হবে। প্রথম সন্তান কোন বিশেষ শিল্পকলায়  ধীশক্তি সম্পন্ন হবে।

 

জ্যোতিষীর কাছে আপনার প্রশ্ন পাঠাতে
নীচের ঠিকানায় ই-মেল করুন

jeevandarshan@abpdigital.in