জল্পনা ছিলই, তিনি রাজনীতিতে পা দেবেন। এ বার সেটাই হয়তো বাস্তব হতে চলেছে। তবে, এখানেও নতুন চমক দিতে চান তামিল মেগাস্টার কমল হাসন। সরাসরি কোনও রাজনৈতিক দলে যোগ না দিয়ে বরং নতুন দল গঠনের পথেই এগোতে চলেছেন এই বর্ষীয়ান অভিনেতা। আনুষ্ঠানিক ভাবে ঘোষণা না করলেও, ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেস জানিয়েছে, সেপ্টেম্বরের শেষে নতুন দল গড়তে পারেন কমল হাসন।

আরও পড়ুন: 

অপসারিত শশী, ‘চিরন্তন’ নেত্রী আম্মা

চাঁদে পা রাখতে দোসর জাপান

যখন তিনি অভিনেতা

অভিনেতার এক ঘনিষ্ঠ সূত্র ইন্ডিয়ান এক্সপ্রেসকে জানিয়েছেন, আগামী কয়েক দিনের মধ্যেই নতুন দল গঠনের ঘোষণা করতে পারেন অভিনেতা। গত মাসেই, তামিলনাড়ুর বিরোধী দল ডিএমকে-র অনুষ্ঠানে একই মঞ্চে দেখা গিয়েছিল তামিল ফিল্মের দুই মেগাস্টার রজনীকান্ত ও কমল হাসনকে। প্রাক্তন মুখ্যমন্ত্রী জয়ললিতার মৃত্যুর পর যখন শাসক দল এআইএডিএমকে’র ‘গ্ল্যামারের আলো’ যখন কিছুটা স্তিমিত, সেই সময় দুই মেগাস্টার বিরোধী দলের অনুষ্ঠানে একসঙ্গে হাজির হওয়ায় নতুন করে বিতর্ক উস্‌কে দিয়েছিল।  গত মাসেই শাসক দল এআইএডিএমকে-র বিরুদ্ধে প্রকাশ্যে গর্জে উঠেছিলেন ৬২ বছর বয়সী কমল।

যখন তিনি বক্তা

তিনি বলেছিলেন, ‘‘দলটা (এআইএডিএমকে) দুর্নীতিতে একেবারে ভরে গিয়েছে। দলের ওপর তলা থেকে তৃণমূল স্তর, দুর্নীতির শিকড় সব পর্যায়েই গভীরে চলে গিয়েছে।’’ দুর্নীতির যে যে অভিযোগ তাঁরা পাচ্ছেন, সেগুলি ইমেল করে আমজনতাকে পাঠাতে বলেছিলেন তামিলনাড়ুর মন্ত্রীদের। সেই ‘তোপ’ যথেষ্টই চটিয়েছিল এআইএডিএমকে-র নেতা-মন্ত্রীদের। রাজ্যের বেশ কয়েক জন মন্ত্রী প্রায় একই সুরে কমলকে ‘তৃতীয় শ্রেণির অভিনেতা’ বলে গাল পেড়েছিলেন। তাঁর বিরুদ্ধে বিশাল অঙ্কের আয়কর ফাঁকির অভিযোগও তোলা হয়েছিল।