​‘বাবা’ আসল, না কি নকল!

তাঁর বিরুদ্ধে কোনও অভিযোগ আছে!

তাঁর কাজকর্ম কি সন্দেহজনক!

সঠিক ‘বাবা’ চেনাতে এ বার আই কার্ড দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল অখিল ভারতীয় আখড়া পরিষদ।

আরও পড়ুন: পোঁতা আছে বহু লাশ, মানল ডেরা

কিন্তু, কেন এমন সিদ্ধান্ত হিন্দু ধর্মগুরুদের শীর্ষ সংগঠনের? সৌজন্যে অবশ্যই  গুরমিত রাম রহিম সিংহের সাম্প্রতিক জেলগমন। রাম রহিমই শুধু নন, আরও অনেক স্বঘোষিত বাবাকে নিয়েও এর আগে যৌন কেলেঙ্কারি বা আর্থিক কেলেঙ্কারির অভিযোগ উঠেছে। তোপের মুখে পড়তে হয়েছে বিভিন্ন হিন্দুত্ববাদী সংগঠনকেও। কারণ এই সব বাবাদের অনেকের সঙ্গেই হিন্দুত্ববাদী সংগঠনগুলোর সু-সম্পর্ক নানা ভাবে প্রকাশিত।


বৈঠকে অখিল ভারতীয় আখড়া পরিষদের সদস্যরা।— ফাইল ছবি। 

অসাধু বাবাদের কাণ্ডকারখানা থেকে সাধু বাবাদের ইমেজ বাঁচাতে এ বার তাই সচিত্র ‘সাধু’ পরিচয়পত্র দেওয়ার সিদ্ধান্ত নিল অখিল ভারতীয় আখড়া পরিষদ। বিশ্ব হিন্দু পরিষদের যুগ্ম সাধারণ সম্পাদক সুরেন্দ্র জৈনকে উদ্ধৃত করে এই খবর দিয়েছে  সংবাদ সংস্থা পিটিআই। আখড়া পরিষদের সঙ্গে ঘনিষ্ঠভাবে কাজ করে বিশ্ব হিন্দু পরিষদ। সঙ্ঘ পরিবারের অংশই বলা যায়। এ প্রসঙ্গে বলতে গিয়ে সুরেন্দ্র জৈন বলেছেন, ‘‘দু’একজন অ-সাধুর জন্য সবার বদনাম হয়ে যাচ্ছে। এ বিষয়টিতে নজর দিতে হবে। পরিষদ যাদের পরিচয় পত্র দেবে তাঁরাই স্বীকৃতি পাবেন।’’ তিনি আরও জানিয়েছেন, এ বার থেকে সাধুদের জীবনযাত্রা, কাজকর্মের দিকেও নজর রাখবে পরিষদ।

আরও পড়ুন:  রাম রহিমের বিরুদ্ধে সাধ্বীর সেই চিঠি, পড়লে শিউরে উঠবেন

জৈন জানিয়েছেন, কোনও সাধু তথ্য দেওয়ার পর সেগুলি পরীক্ষা করে দেখা হবে। এ বিষয়ে কোনও অসঙ্গতি ধরা পড়লে দ্রুত ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলেও জানিয়েছেন তিনি।