রঞ্জি ফাইনাল খেলে ইনদওর থেকে দিল্লি ফেরার পথে সারা রাত এয়ারপোর্টেই আটকে থাকতে হল দিল্লি দলকে। এক তো ফাইনালে বিদর্ভের কাছে হেরে শেষটা সুখকর হয়নি। তার মধ্যে বিমান বিভ্রাটে রীতিমতো বিরক্ত পুরো দল। বুধবার দিল্লি ফেরার কথা রয়েছে।

মঙ্গলবার রাতে ইনদওর থেকে ওড়ার কথা ছিল দিল্লি দলের বিমানের। কিন্তু দীর্ঘক্ষণ দাঁড়িয়ে থাকার পর সেই ফ্লাইট বাতিল করা হয়। ফ্লাইটের মধ্যেই আটকে থাকে সব যাত্রীরা। ইন্ডিগো এয়ারলাইন্সের ফ্লাইট ৮৬৭র যাত্রীদের উদ্দেশে ঘোষণা করা হয় ইঞ্জিনে কিছু গোলমাল হওয়ায় দেড়ি হচ্ছে। দ্রুত সমস্যা মিটিয়ে যাত্রা শুরু করা হবে। সবাইকে নিজের সিটেই বসে থাকতে বলা হয়। কিন্তু অনেকটা সময় ওভাবে কেটে যাওয়ার পর যাত্রীরাই প্রতিবাদ করতে শুরু করেন। যাত্রীদের চাপে সবাইকে ফ্লাইট থেকে নামিয়ে বিমান বন্দরে নিয়ে যাওয়া হয়।

তখন ঘড়িতে রাত একটা। ততক্ষণে কয়েক ঘণ্টা কেটে গিয়েছে ফ্লাইটের মধ্যেই। দিল্লির এই দলে ছিলেন ঋশভ পন্থ, উনমুক্ত চাঁদ, নীতিশ রানা, ধ্রুব শোরে, কোচ কেপি ভাস্কর, নির্বাচক হরি গিদবানিসহ সকলেই আটকে ছিলেন ওই বিমানে। বুধবার ওই বিমানেই তাদের দিল্লি ফেরার কথা। অধিনায়ক গৌতম গম্ভীর অবশ্য আগের রাতেই ফিরে গিয়েছিলেন। তাই এই বিভ্রাটের মধ্যে তাঁকে পড়তে হয়নি। উনমুক্ত চাঁদ টুইট করেও তাঁর বিরক্তির কথা জানিয়েছেন।

আরও পড়ুন
বিমান বিভ্রাটে এখনও গোয়ায় আটকে এফসি গোয়া