সেঞ্চুরি করে বুমরাকে কেন ধন্যবাদ জানালেন কুক?

বিদায়ী টেস্ট ইনিংস খেলে ফিরছেন কুক। ছবি: রয়টার্স।

বিদায়ী টেস্ট ইনিংসে শতরানের জন্য জশপ্রীত বুমরাকে ধন্যবাদ জানালেন অ্যালেস্টেয়ার কুক। বুমরার ওভারথ্রোতেই এসেছিল কেরিয়ারের ৩৩তম শতরান।

কুক তখন ব্যাট করছিলেন শতরানের দোরগোড়ায়। রবীন্দ্র জাডেজার বল ঠেলে খুচরো রান নিতে দৌড়েছিলেন। বুমরা স্টাম্প লক্ষ্য করে বল ছোড়েন। কিন্তু তা ওভারথ্রো হয়ে সীমানায় পৌঁছয়। পাঁচ রান পান কুক। আসে বহু আকাঙ্খিত শতরান।

সীমানার কাছে বুমরার থ্রো ধরার চেষ্টা করেছিলেন চেতেশ্বর পূজারা। কিন্তু তা ধরতে পারলে অস্বস্তিতে পড়তেন কুক। কারণ, ওভারথ্রো বাউন্ডারিতে পৌঁছনোর আগেই শতরানে পৌঁছনোর উচ্ছ্বাস দেখিয়ে ফেলেছিলেন তিনি!

আরও পড়ুন: সেরিনার ছবি এঁকে বিতর্কে কার্টুনিস্ট মার্ক নাইট

আরও পড়ুন: ‘ব্যতিক্রমী ওপেনার প্রেরণা হয়েই থাকবেন’

কুক বলেছেন, “৯৬ রানে দাঁড়িয়ে কাট করেছিলাম। ভেবেছিলাম ৯৭-তে পৌঁছব। আরও তিন রান তখনও বাকি। কিন্তু যখনই বুমরা ছুড়েছে, ভাবলাম একটু অপেক্ষা করি। কারণ, ও বেশ জোরে ছুড়েছিল। বোলার জাডেজা ওর থ্রো আটকানোর মতো জায়গায় একেবারেই ছিল না। আমি তাই অপেক্ষা করতে চাইছিলাম।” তাঁর আরও সংযোজন, “দেখুন, ওই ওভারথ্রো আমায় বুকের ব্যথা থেকে বাঁচিয়েছে। এই সিরিজে বুমরা তো আর আমাকে কম ভোগায়নি। তাই এমন একটা মুহূর্ত উপহার দেওয়ার জন্য ধন্যবাদ জানাতেই পারি।”

শতরানের পর আবেগতাড়িত দেখায় কুককে। জীবনের প্রথম টেস্টেও পেয়েছিলেন শতরান। তা পেলেন শেষ টেস্টেও। দুটো ক্ষেত্রেই বিপক্ষে ছিল ভারত। চলতি সিরিজে প্রথম চার টেস্টে সাত ইনিংসে করেছিলেন মোটে ১০৯ রান। কেনিংটন ওভালে প্রথম ইনিংসে ৭১ করার পর দ্বিতীয় ইনিংসে থামলেন ১৪৭ রানে। যা হয়ে থাকল তাঁর শেষ টেস্ট ইনিংস।

(আইসিসি বিশ্বকাপ হোক বা আইপিএল, টেস্ট ক্রিকেট, ওয়ান ডে কিংবা টি-টোয়েন্টি। ক্রিকেট খেলার সব আপডেট আমাদের খেলাবিভাগে।)