Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২০ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

১১ মাসে সর্বোচ্চ টাকা

দৌড় অব্যাহত সেনসেক্সের

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ২০ মে ২০১৪ ০২:৪৯
প্রত্যাশায় বাজার। ছবি: এএফপি

প্রত্যাশায় বাজার। ছবি: এএফপি

প্রত্যাশা মতোই বেড়ে চলেছে বাজার। এবং একের পর এক রেকর্ড ভেঙে এগোচ্ছে সূচক। সপ্তাহের প্রথম দিন, সোমবারও মোদী ম্যাজিকে ভর করে সেনসেক্স পাড়ি দিয়েছে আরও ২৪১ পয়েন্ট উপরে। বাজার বন্ধের সময় থিতু হয়েছে ২৪,৩৬৩.০৫ অঙ্কে। যা সর্বকালীন উচ্চতার ফের এক নতুন নজির। এ দিন ডলারের সাপেক্ষে টাকার দামও ২০ পয়সা বেড়ে পৌঁছে গিয়েছে গত ১১ মাসের মধ্যে সব থেকে উঁচুতে। বাজার বন্ধের সময় এক ডলার ছিল ৫৮.৫৯ টাকায়। তবে টাকা হয়তো আরও কিছুটা বাড়ত। রিজার্ভ ব্যাঙ্ক বিদেশি মুদ্রার ভাণ্ডার বাড়ানোর লক্ষ্যে বাজার থেকে ডলার কিনতে শুরু করায় তা ওই দাম বৃদ্ধির পথে কিছুটা অন্তরায় হয়ে দাঁড়ায়।

এ নিয়ে টানা তিন দিনের লেনদেনেই উচ্চতার নতুন তিনটি শিখরে পা রাখল সূচক। বিশেষজ্ঞদের মতে, অর্থনীতিকে শক্ত ভিতের উপর দাঁড় করানোর ক্ষেত্রে মোদী সরকারের উপর লগ্নিকারীদের আস্থা এ দিনও বাজারকে ঠেলে তোলার অন্যতম কারণ ছিল। তবে একই সঙ্গে ইন্ধন জুগিয়েছে আন্তর্জাতিক মূল্যায়ন (রেটিং) সংস্থা মুডিজ প্রকাশিত রিপোর্টও। যেখানে বলা হয়েছে, নিরঙ্কুশ সংখ্যা গরিষ্ঠতা নিয়ে ভারতে বিজেপি-র নেতৃত্বে এনডিএ-র শক্তিশালী ও স্থায়ী সরকার তৈরির সম্ভাবনা দেখা দিয়েছে। ফলে আশা করা যায় এ বার দেশের অর্থনৈতিক সমস্যাগুলি সমাধানের পথ তৈরি হবে। আর সেই পরিপ্রেক্ষিতেই ভারতকে স্থিতিশীল (স্টেবল) দৃষ্টিভঙ্গী (আউটলুক)-সহ ‘বিএএথ্রি’ রেটিং দিয়েছে মুডিজ। যার অর্থ, ভারতের ঋণ ফেরতের ঝুঁকি মাঝারি, কিন্তু সে সম্পর্কে দৃষ্টিভঙ্গী আপাতত স্থিতিশীল। পাশাপাশি রিজার্ভ ব্যাঙ্কের কমিটি সম্প্রতি রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাঙ্ক বেসরকারিকরণের যে সুপারিশ করেছে, ব্যাঙ্কগুলির ধার শোধের ক্ষেত্রে তাকেও ‘ইতিবাচক’ আখ্যা দিয়েছে মুডিজ। এই রিপোর্টের জেরে উচ্ছ্বসিত বিদেশি লগ্নিকারীরাও বাজারে বিপুল টাকা ঢেলেছে এ দিন।

কেন্দ্রে স্থায়ী সরকার গঠিত হলে বিদ্যুৎ, ইস্পাত, কয়লা, নির্মাণ শিল্পের মতো পরিকাঠামো ও ব্যাঙ্কের হাল ভাল হবে মনে করেও এই সব সংস্থার শেয়ারের চাহিদা তৈরি হচ্ছে বলে ধারণা বাজার বিশেষজ্ঞদের। ফলে বিপুল বাড়ছে এগুলির দর। এ দিন তাক লাগানো উত্থান হয়েছে বিদ্যুৎ উৎপাদন সংস্থা এনটিপিসির (১০.৩৫%)। চাঙ্গা হয়েছে বিদ্যুৎ উৎপাদন এবং সরবরাহের যন্ত্রপাতি তৈরির সংস্থা ভেলের শেয়ার (১৬.৯৪%)। অনেকটা উঠেছে কোল ইন্ডিয়ার শেয়ার দরও (১২.৭৩%)। পাশাপাশি এ দিনও, নড়েচড়ে বসতে দেখা গিয়েছে মাঝারি ও ছোট সংস্থার দরকে। দেশের আর্থিক হাল খারাপ হয়ে পড়ায় যেগুলি বেশ কিছু দিন ধরেই তেমন বাড়ছিল না। এ দিকে মোদী হাওয়ায় ভর করে এ বার বাজারে নতুন শেয়ার ইস্যুর ঢল নামবে বলেও মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা।

Advertisement

আরও পড়ুন

Advertisement