Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৩ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

ফের ২৬ হাজারের ঘরে ফিরল সূচক

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ৩১ জুলাই ২০১৪ ০২:০৭

টানা দু’দিন পড়ার পরে বুধবার কিছুটা উঠল বাজার। এ দিন সেনসেক্স বাড়ল ৯৬.১৯ পয়েন্ট। ফলে ফের তা ২৬ হাজারের ঘরে ঢুকল। এবং থিতু হল ২৬,০৮৭.৪২ অঙ্কে।

এ দিন ডলারের সাপেক্ষে টাকার দামও বেড়েছে ৭ পয়সা। এক ডলার হয়েছে ৬০.০৬ টাকা। শেয়ার বাজারে বিদেশি লগ্নি বাড়াই যার কারণ বলে বাজার সূত্রে খবর। কারণ, বিদেশি লগ্নি সংস্থাকে ভারতের শেয়ার বাজারে টাকায় লগ্নি করতে হয়। যদিও এ জন্য তারা বিদেশ থেকে ডলারেই তহবিল সংগ্রহ করে। অর্থাত্‌ ওই ডলার তারা টাকায় রূপান্তরিত করতে থাকে বলেই বাড়ে মার্কিন মুদ্রাটির জোগান। আর জোগান-চাহিদার স্বভাবাবিক নিয়ম মেনেই পড়ে ডলারের দাম, বাড়ে টাকা।

বিদেশি লগ্নি সংস্থাগুলির বিনিয়োগ তো ছিলই। পাশাপাশি, আজ ডেরিভেটিভের আগাম লেনদেনের সেট্লমেন্টের দিন। যে-সব লেনদেনকারী হাতে শেয়ার না-থাকা সত্ত্বেও তা বিক্রি করে রেখেছেন, তাঁদের আজ শেয়ার হস্তান্তর করতে হবে। তাই বুধবার তাঁরা শেয়ার কিনতে নামেন। এই হিড়িক সূচকের উত্থানে সাহায্য করেছে।

Advertisement

এখন অবশ্য সূচকের হঠাত্‌ বড় মাপের উত্থান বা পতনের সম্ভাবনা কম বলে মত বহু বিশেষজ্ঞের। তবে স্টুয়ার্ট সিকিউরিটিজের চেয়ারম্যান কমল পারেখের মতো অনেকে মনে করেন, বাজারে এখনও সংশোধন হওয়ার সম্ভাবনা রয়েছে। তিনি বলেন, “শেয়ারের দর যেখানে উঠেছে, তাতে এখনও কিছুটা কৃত্রিমতা আছে। তাই সংশোধন হওয়ার সুযোগও আছে।”

অনেকের মতে, ২৬ হাজারে সূচক ওঠার কারণ লগ্নিকারীদের সেই প্রত্যাশাই। তাঁরা মনে করছেন, নয়া সরকার কিছু ব্যবস্থা নেবে, যাতে উন্নয়ন গতি পাবে। পরিকাঠামো উন্নয়ন-সহ আর্থিক বৃদ্ধির জন্য অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলি বেশ কিছু প্রস্তাব দিয়েওছেন বাজেটে। বৃদ্ধির সঙ্গে তাল রেখে সূচকের উত্থান হলেই বাজারে স্থিতি ফিরবে বলে মনে করছেন বিশেষজ্ঞরা। অবশ্য তাঁরা একমত যে, বাজারের রীতি মেনে মাঝে মধ্যে সূচকের পতন হলেও, নিট হিসাবে সূচকের গতি উপরের দিকেই থাকবে।

আরও পড়ুন

Advertisement