ফোনের দুনিয়ায় ফোর জি পরিষেবা ও সস্তায় ইন্টারনেট দিয়ে জিও গোটা দেশে অল্প সময়ের মধ্যে দ্রুত ছড়িয়ে পড়েছে । এবার সেই জাদু হাজির ব্রডব্যান্ড পরিষেবাতে ।

“জিও গিগা ফাইবার” নামে হাজির এই পরিষেবা এখন পরীক্ষামূলক ভাবে কলকাতায় চালু হয়েছে, শীঘ্রই সাধারণ মানুষ, কর্পোরেট সংস্থা ব্যবহার করতে পারবে । কিন্তু সকলের বাড়িতেই ব্রডব্যান্ড রয়েছে, ওয়াই-ফাই রয়েছে, তাহলে জিও ফাইবার কেন?
কলকাতায় এখন ভালো ইন্টারনেট পরিষেবা দেয়  অ্যালায়েন্স, মেঘবেলা, সিটি কেবল, হ্যাচওয়ে-র মত সংস্থাগুলি । জিও ফাইবার চালু হবার পর থেকেই ধাপে ধাপে কোম্পানিগুলি পরিষেবা মাশুল এক রেখে ব্রডব্যান্ড স্পিড প্রায় দ্বিগুণ করে দিয়েছে । কিন্তু যন্ত্রাংশ, পদ্ধতি এখনও সেই পুরনো মডেলেই চলছে । ফলে ঝড়বৃষ্টির মত প্রাকৃতিক দুর্যোগ হোক, বা লোকাল কেবল অপারেটরের সার্ভারে গন্ডগোল, একাধিক কারণে ইন্টারনেট সংযোগটুকুও পাওয়া যায় না ।

আরও পড়ুন: তিন হাজারেরও কমে নতুন ফোন জিও-র, জেনে নিন ফিচার

এখানেই জিও ফাইবারের জাদু । জিও ফাইবার যে পদ্ধতিতে ব্যবহারকারীদের সংযোগ দিচ্ছে তা হল, ফাইবার টু দ্য হোম ( এফটিটিএইচ)। এই পদ্ধতি অনেক বেশি দ্রুত, অনেক কম বাধা পেরোতে হয়, ফলে অযথা সময় ন্ষ্ট হয় না।
ফাইবার অপটিক কেবলের মাধ্যমে পরিষেবা দিচ্ছে জিও । স্পিড ১৫ এমবিপিএস থেকে ৬০০এমবিপিএস, বিভিন্ন প্যাকেজ এবং বিভিন্ন মাশুলের ব্যবস্থা করা হয়েছে, যাতে সব ধরনের মানুষ, সব ধরনের ব্যবহারকারী তাদের প্রয়োজন অনুযায়ী পরিষেবা পেতে পারেন । কোম্পানির নাম যখন জিও, লোভনীয় কিছু অফার থাকবেই । প্রথম তিন মাস বিনামূল্যে ব্যবহার করতে পারবেন গ্রাহক, মাসে ১০০জিবি করে ডেটা পাবেন, ফুরিয়ে গেলে ২৫ বার ৪০জিবি করে ডেটা রিচার্জ করতে পারবেন, সমস্তটাই বিনামূল্যে। তবে সংযোগ পেতে হলে প্রায় ৪৫০০ মত সিকিউরিটি  ডিপোজিট (ফেরতযোগ্য) করতে হবে, কারণ ফাইবার অপটিকের জন্যে আলাদা যন্ত্রাংশের প্রয়োজন ।
বিশেষ সূত্রের খবর, এখন পরীক্ষামূলক ভাবে কলকাতার যেখানে যেখানে জিও ফাইবার হাজির ( হাজরা-কসবা-গড়িয়াহাট-নিউটাউন) তারা এখন থেকেই মাসে ১০০ জিবির দ্রুতগতির ইন্টারনেট পরিষেবা পেতে শুরু করবেন, যতদিন না আনুষ্ঠানিক ভাবে ঘোষিত হচ্ছে জিও-র তরফ থেকে ।

বাইরের শহরগুলোয় যেমন হায়দরাবাদ, বেঙ্গালুরু এবং আরও অনেক জায়গায় ফাইবার অপটিকের মাধ্যমেই ইন্টারনেট পরিষেবা দেওয়া হয়, কলকাতাতেও অল্প কিছু সংস্থা দিয়ে থাকলেও তাদের মাশুল এতটাই চড়া, যে সাধারণ মানুষ এতদিন ফাইবার অপটিকের ব্যাপারে ভাবতেই পারেননি । দেখা যাক জিও জাদুতে দেশের ব্রডব্যান্ড চিত্রটা কিভাবে পাল্টে যায়।