ফের চিনা মাঞ্জায় জখম হলেন এক মোটরবাইক চালক। ঘটনাটি ঘটেছে সোমবার বিকেলে কড়েয়া থানা এলাকার মা উড়ালপুলের উপরে। আহতের নাম গুরমিত সিংহ ভামরা।

শিবপুরের বাসিন্দা বছর একুশের ওই যুবক প্রগতি ময়দান থেকে কলকাতা পুলিশ ট্রেনিং স্কুলের দিকে যাচ্ছিলেন। আচমকা চার নম্বর ব্রিজের কাছে গলায় টান পড়লে গুরমিত দ্রুত ব্রেক কষে মোটরবাইক থামিয়ে দেন। পাশ দিয়ে বেরিয়ে যাওয়া গাড়ির চালকেরা এক যুবককে গলায় রুমাল চাপা দিতে দেখে গাড়ি থামিয়ে পুলিশে খবর দেন। এর পরেই জখম গুরমিতকে ন্যাশনাল মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হয়। প্রাথমিক চিকিৎসার পরে তাঁকে ছেড়ে দেওয়া হয়েছে।

এর আগেও এই উড়ালপুলে একাধিক বার মোটরবাইকচালকেরা চিনা মাঞ্জায় জখম হয়েছেন। কারও গলা কেটেছে, তো কারও গাল, এমনকি চোখের নীচের অংশ কাটারও ঘটনা ঘটেছিল। এ দিন ফের একই ঘটনায় চিন্তিত পুলিশ। এমন দুর্ঘটনার পরে কলকাতা পুলিশ আগেই কেএমডিএ কর্তৃপক্ষকে উড়ালপুলের দু’ধারে লোহার জাল লাগানোর জন্য চিঠি পাঠিয়েছিল। কিন্তু সেই জাল এখনও লাগানো হয়নি। এ দিকে শহরের অন্যত্রও ছড়িয়েছে চিনা মাঞ্জার ব্যবহার। গত মাসেই কালিকাপুর মোড়ের কাছে রাস্তায় পড়ে থাকা চিনা মাঞ্জায় গাল কেটে যায় নেতাজিনগরের এক যুবকের। ৯ অগস্ট হেস্টিংস থানার অন্তর্গত দ্বিতীয় হুগলি সেতুতেও এক বাইক আরোহী চিনা মাঞ্জায় 

জখম হয়েছিলেন।