প্রায় প্রতিদিনই ঘটে চলেছে একের পর এক চিকিৎসক-নিগ্রহের ঘটনা। হাসপাতাল ও নার্সিংহোমগুলিতে চিকিৎসক ও নার্সদের উপরে রোগীর পরিবারের ক্রমাগত হামলার পরেও নিষ্ক্রিয় প্রশাসন। উপরন্তু অভিযুক্তদের আড়াল করতেই ব্যস্ত তারা। এমনই অভিযোগ চিকিৎসকদের সংগঠন ‘অ্যাসোসিয়েশন অব হেলথ সার্ভিস ডক্টর্স’-এর। সামগ্রিক ঘটনার জেরে আতঙ্কিত চিকিৎসক মহল।

গত ২৯ অগস্ট যার শেষ উদাহরণ সিএমআরআই-এর ঘটনা। কর্তব্যরত এক চিকিৎসককে মারধরের অভিযোগ উঠেছিল ওই হাসপাতালে ভর্তি এক পুলিশকর্তার বিরুদ্ধে। ঘটনার ১৪ দিন পরেও অভিযুক্ত ওই অফিসারের বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ করেনি প্রশাসন। এমনকি তাঁর বিরুদ্ধে এফআইআর দায়েরও হয়নি।

এই পরিস্থিতির প্রতিবাদে কাল, বৃহস্পতিবার বিকেল ৪টে নাগাদ মৌলালি যুবকেন্দ্রে চিকিৎসকদের সম্মেলনের আয়োজন হয়েছে। যেখানে আমন্ত্রণ জানানো হয়েছে বিভিন্ন রাজনৈতিক দলের নেতাদের।

অ্যাসোসিয়েশন অব হেলথ সার্ভিস ডক্টর্স-এর সম্পাদক মানস গুমটা বলেন, ‘‘এই সম্মেলনে আলোচনায় উঠে আসবে পরিস্থিতির পক্ষে এবং বিপক্ষে বিভিন্ন মতামত। আগামী দিনে স্বাস্থ্য ক্ষেত্রে নৈরাজ্য রুখতে যা এই মুহূর্তে জরুরি।’’