• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

পরিচারিকাকে ছেঁকা, ধৃত গৃহকর্ত্রী

Child abuse
প্রতীকী ছবি।

এক কিশোরী পরিচারিকাকে রুটি সেঁকার তারের জাল দিয়ে ছেঁকা দেওয়া হয়েছে বলে মঙ্গলবার 
পুলিশের কাছে অভিযোগ জমা পড়ল। কিশোরীর অভিযোগের ভিত্তিতে সে দিনই গৃহকর্ত্রীকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।
পুলিশ সূত্রে খবর, ধৃতের বাড়ি পঞ্চসায়র থানার নয়াবাদে। মঙ্গলবার তাঁর বিরুদ্ধে ওই অভিযোগ জানায় বছর পনেরোর ওই মেয়েটি। 
প্রাথমিক চিকিৎসার পরে তার আঘাত গুরুতর নয় বলে জানিয়েছে পুলিশ। ওই দিনই কিশোরীকে একটি বেসরকারি হোমে পাঠানো হয়। অভিযুক্তকে বুধবার আলিপুর আদালতে তোলা হলে বিচারক জামিনে মুক্তি দেন।
প্রাথমিক তদন্তে পুলিশ জানতে পেরেছে, বাঁকুড়ার বাসিন্দা মেয়েটি ওই বাড়িতে এক বছরের বেশি সময় ধরে কাজ করছিল। এক পরিচিতের সূত্রে সে ওই বাড়িতে কাজে যোগ দিয়েছিল। অভিযুক্ত গৃহকর্ত্রীর ছোট দু’টি সন্তান আছে। মূলত তাদের দেখাশোনা করত ওই পরিচারিকা।
পুলিশের কাছে অভিযোগে মেয়েটি জানিয়েছে, মাঝেমধ্যেই নানা অজুহাতে তার উপরে অত্যাচার চালানো হত। মঙ্গলবারের ওই ঘটনার আগেও একাধিক বার তার উপরে অত্যাচার করা হয়েছে পুলিশের কাছে দাবি করেছে অভিযোগকারী কিশোরী। যদিও অভিযুক্তের দাবি, তিনি ইচ্ছাকৃত ভাবে ছেঁকা দেননি ওই নাবালিকাকে।
কী ঘটেছিল মঙ্গলবার?
পুলিশ জানিয়েছে, ওই দিন সকালে গৃহকত্রী রুটি করতে বলেছিলেন কিশোরীকে। কিন্তু অভিযোগ, রুটি ঠিক মতো ফুলছে না দেখে তিনি রুটি সেঁকার তারের জালি দিয়ে মেয়েটির হাতে আঘাত করেন। তার চিৎকারে ছুটে আসেন পড়শিরা। তাঁরাই পুলিশকে খবর দেন। পরে পুলিশের কাছে অভিযোগ দায়ের করে ওই নাবালিকা। যার ভিত্তিতে গ্রেফতার করা হয় গৃহকর্ত্রীকে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন