• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

গণধর্ষণে ধৃত কিশোর সাবালকই, বলল বোর্ড

Rape
প্রতীকী ছবি।

Advertisement

পঞ্চসায়রের গণধর্ষণ-কাণ্ডে ধৃত নাবালককে সাবালক হিসেবে বিবেচনা করা হবে। বুধবার জুভেনাইল জাস্টিস বোর্ড এই রায় দিয়েছে বলে জানিয়েছে লালবাজার। গত ২১ নভেম্বর বোর্ডের কাছে কলকাতা পুলিশ আবেদন জানিয়েছিল, ধৃত ওই নাবালককে সাবালক হিসেবে বিবেচনা করা হোক।

গত ১১ নভেম্বর পঞ্চসায়রের হোম থেকে বেরিয়ে গিয়ে মৃগী রোগিণী, মানসিক সমস্যায় ভোগা এক মহিলা গণধর্ষণের শিকার হন বলে অভিযোগ ওঠে। উত্তম রাম নামে এক ট্যাক্সিচালকের পাশাপাশি ১৭ বছর ছ’মাসের ওই নাবালককে সে সময়ে গ্রেফতার করে পুলিশ। নির্ভয়া-কাণ্ডের জেরে ফৌজদারি অপরাধে নাবালক-সাবালক গণ্য করার ক্ষেত্রে আইন পরিবর্তিত হয়েছে। গুরুতর অপরাধের ক্ষেত্রে ১৮-র পরিবর্তে ১৬ বছর বয়স হলেই তাকে সাবালক হিসেবে গণ্য করা যাবে বলে ওই আইনে বলা হয়েছে।

এ দিন জুভেনাইল জাস্টিস বোর্ডের মুখ্য বিচারক কৌস্তুভ মুখোপাধ্যায় জানান, পুলিশের পেশ করা রিপোর্টের ভিত্তিতে তাঁরা নিশ্চিত, ওই নাবালককে সাবালক হিসেবে বিবেচনা করা যায়। তবে গণধর্ষণ-কাণ্ডে ওই নাবালকের বিচার স্পেশ্যাল চাইল্ড কোর্টেই হবে। পুলিশ সূত্রের দাবি, চাইল্ড কোর্টের বিচারে ওই কিশোর দোষী সাব্যস্ত হলে বা তার ১০ বছরের হাজতবাসের সাজা হলে তার মধ্যে তিন বছর কয়েক মাস সে হোমে থাকতে পারবে। বাকি সময় তাকে জেলে থাকতে হবে। কারণ নিয়ম অনুযায়ী, এ ক্ষেত্রে নাবালক ২১ বছর বয়স পর্যন্ত হোমে থাকতে পারে।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন