• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

গ্যাস ‘চুরি’ করে বিক্রি, পাকড়াও ১

Gas

সরু এক চিলতে রাস্তার ধারে ছড়িয়ে আবর্জনা। দু’পাশে ঝুপড়ি। গলি দিয়ে এগোতেই চার ব্যক্তি দেখলেন, একটি ঘরের বাইরে সার দিয়ে রাখা গ্যাস সিলিন্ডার। সামনে রিফিলিং মেশিনও। অপরিচিতদের দেখে এক যুবক পালানোর চেষ্টা করতেই তাকে ধরে ফেললেন ওই চার জন।
ওই চার ব্যক্তি আসলে কলকাতা পুলিশের এনফোর্সমেন্ট শাখার (ইবি) গোয়েন্দা। ধৃতের নাম মোহন রাম। অভিযোগ, গৃহস্থালির কাজে ব্যবহৃত সিলিন্ডার থেকে গ্যাস চুরি করে তা ব্যবসায়িক সিলিন্ডারে ভরে ফুটপাতের ফাস্ট ফুডের দোকানে চড়া দামে বিক্রি করত সে। সোমবার রাতে বেনিয়াপুকুর রোডের একটি বস্তি থেকে মোহনকে ধরা হয়। বাজেয়াপ্ত হয়েছে পাঁচটি গৃহস্থালি ও তিনটি ব্যবসায়িক কাজে ব্যবহৃত সিলিন্ডার। বাজেয়াপ্ত হয়েছে একটি রিফিলিং মেশিন এবং সিলিন্ডারের মুখ বন্ধ করার যন্ত্র। চক্রে জড়িত বাকিদের খোঁজ চলছে। ধৃত মোহনকে মঙ্গলবার শিয়ালদহ আদালতে হাজির করা হয়। সরকারি কৌঁসুলি অরূপ চক্রবর্তী জানান, চক্রের অন্যদের খোঁজ পেতে ধৃতকে সোমবার পর্যন্ত পুলিশি হেফাজতে রাখার নির্দেশ দেন বিচারক। তদন্তকারীদের অনুমান, সিলিন্ডার ‘ডেলিভারি বয়’-দের যোগসাজশেই এমন চক্র সক্রিয় হয়ে উঠেছে। পুলিশ জানিয়েছে, গুদাম থেকে বাড়িতে পৌঁছনোর আগেই মাঝপথে সিলিন্ডার থেকে গ্যাস চুরি হচ্ছে বলে অভিযোগ আসছিল।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন