• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

প্রতিবন্ধী ছাত্রকে ‘মারধর’

Child abuse
প্রতীকী ছবি

মূক ও বধির এক ছাত্রকে ক্লাসে মারধরের অভিযোগ উঠল এক শিক্ষকের বিরুদ্ধে। শুভজিৎ দাস নামে ওই ছাত্রের পরিবারের অভিযোগ, ঘটনার পরে ভয়ে সে স্কুলে যাওয়া বন্ধ করে দিয়েছে। বুধবার ঘটনাটি ঘটেছে সোনারপুর থানার মহামায়াতলার মহামায়াপুর আদর্শ বিদ্যাপীঠে।

পুলিশ সূত্রে খবর, এ বছরেই ওই স্কুলে পঞ্চম শ্রেণিতে ভর্তি হয়েছিল শুভজিৎ। বুধবার ক্লাস চলাকালীন সে কেক খাচ্ছিল। অভিযোগ, সেই ‘অপরাধে’ শিক্ষক তাকে মারধর করেন। তার পায়ে কালশিটে পড়ে যায়। বাবা বিশ্বজিৎ দাস বৃহস্পতিবার সোনারপুর থানায় শিক্ষকের বিরুদ্ধে লিখিত অভিযোগ দায়ের করেন।

শুভজিতের পরিবারের অভিযোগ, আগেও এক শিক্ষিকা তাকে মারধর করেছিলেন। তখন স্কুল কর্তৃপক্ষ ওই শিক্ষিকাকে সাবধান করেছিলেন। এ দিন স্কুলে ফের মারধরের ঘটনায় ছাত্রটি আতঙ্কিত হয়ে পড়েছে বলে তার পরিবারের দাবি। শুভজিতের মা অপর্ণা দাস বলেন, ‘‘আমার প্রতিবন্ধী ছেলেকে নির্মম ভাবে মারা হয়েছে। সে আতঙ্কে স্কুলে যেতে চাইছে না। ভয়ে কান্নাকাটি করছে।’’

স্কুলের ভারপ্রাপ্ত প্রধান শিক্ষক প্রদীপ্ত মণ্ডল বলেন, ‘‘অত্যন্ত নিন্দনীয় ঘটনা। এই ঘটনা সমর্থন করি না। তবে ওই ছাত্রের পরিবার আমাদের কিছু জানাননি। ইতিমধ্যেই স্কুল কমিটির সঙ্গে বসে এ নিয়ে আলোচনা করেছি।’’ তিনি জানিয়েছেন, অভিযোগ প্রমাণিত হলে পরবর্তী সিদ্ধান্ত নেওয়া হবে। তবে প্রয়োজনে ছাত্রের বা়ড়িতে গিয়ে তাকে বুঝিয়ে স্কুলে ফেরত আনা হবে বলেও জানিয়েছেন প্রদীপ্তবাবু।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন