ট্রাকের সঙ্গে ধাক্কায় মৃত্যু হল দুই বাইক আরোহীর। ঘটনাটি ঘটেছে রবিবার ভোরে দিঘা যাওয়ার পথে ছ’নম্বর জাতীয় সড়কের কোলাঘাটে। ঘটনাস্থলেই মৃত্যু হয়েছে উত্তর ২৪ পরগনার দেগঙ্গা থানার হাদিপুর-ঝিকরা ২ পঞ্চায়েতের তৃণমূলের উপপ্রধান প্রবীর মল্লিক (২৪) ও তাঁর বন্ধু বুদ্ধদেব রায়ের (২৮)।

পরিবার সূত্রের খবর, শনিবার রাত ১২টা নাগাদ দেগঙ্গার বাড়ি থেকে বুদ্ধদেবকে নিয়ে বাইকে দিঘা যান প্রবীর। বাইক চালাচ্ছিলেন প্রবীর নিজেই। পুলিশ জানিয়েছে, রাত তিনটে নাগাদ কোলাঘাটে খাওয়া সেরে দিঘার উদ্দেশ্যে রওনা দেন দু’জন। একটু এগোতেই একটি ট্রাকের সঙ্গে ধাক্কা লাগে বাইকটির। ছিটকে পড়েন দু’জন। তদন্তকারী অফিসারের দাবি, ‘‘প্রবীরের মাথায় হেলমেট থাকলেও বুদ্ধদেবের ছিল না।’’ বাইকটির গতি বেশি থাকায় মাথা ফেটে সেখানেই মৃত্যু হয় প্রবীরের। সম্ভবত তা দেখেই হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়ে ঘটনাস্থলেই মারা যান বুদ্ধদেব।

স্থানীয় হোটেল কর্মীরাই তাঁদের উদ্ধার করে পুলিশে খবর দেয়। হাসপাতালে নিয়ে গেলে দু’জনকেই মৃত ঘোষণা করা হয়। পুলিশ প্রবীরের মানিব্যাগে থাকা নম্বরের সূত্রে পরিবারের সঙ্গে যোগাযোগ করে। দুর্ঘটনার খবর দেগঙ্গার বাড়িতে পৌঁছতেই কান্নায় ভেঙে পড়ে দুই পরিবার। প্রবীরের দু’বছরের একটি ছেলেও আছে। খবর পেয়ে ছুটে যান পঞ্চায়েত প্রধান সাহাবুদ্দিন মণ্ডল ও অন্য সদস্যেরা। পঞ্চায়েতের তরফে দুই পরিবারের দায়িত্ব নেওয়া হবে বলে জানান সাহাবুদ্দিন। দেহ দু’টি ময়না-তদন্ত করে তুলে দেওয়া হয় পরিবারের হাতে। কোলাঘাট থানার এক পুলিশ আধিকারিক বলেন, ‘‘বেপরোয়া গতির বাইকটি নিয়ন্ত্রণ রাখতে না পেরে লরির পিছনে ধাক্কা মারায় এই দুর্ঘটনা।’’