• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

আসরের প্রতিবাদ, ‘মারধর’

Lathi charge
প্রতীকী ছবি।

করোনাভাইরাস ঠেকাতে ‘লকডাউন’ চলছে দেশে। এলাকা সুনসান। অভিযোগ, এর মধ্যেও আসানসোল পুরসভার ৪৯ নম্বর ওয়ার্ডের হিলভিউতে একটি উদ্যানে মদ-গাঁজার আসর বসিয়েছিল একদল যুবক। এই ‘জমায়েতের’ প্রতিবাদ করায় তাঁদের মারধর করা হয় বলে অভিযোগ করেন পাড়ার এক যুবক-সহ কয়েকজন। বুধবার সন্ধ্যার ঘটনা।

বৃহস্পতিবার সকালে এলাকায় গিয়ে জানা গেল, মারধরের জেরে মাথা ফেটেছে স্থানীয় যুবক সৌমেশ্বর মজুমদারের। তিনি পুলিশকে জানান, বুধবার সন্ধ্যায় ওই যুবকেরা তাঁর বাড়ির পাশের মাঠে জড়ো হয়েছিলেন। সেখানে গিয়ে তিনি দেখেন, ওই যুবকেরা মদের বোতল খুলে বসেছে। সৌমেশ্বরবাবুর অভিযোগ, ‘‘প্রথমে ওই দলটিকে হাতজোড় করে জটলা না করার অনুরোধ করি। কিন্তু তাতে কর্ণপাত না করে গাঁজার ছিলিম বার করে ওরা। আমি পুলিশ ডাকার কথা বলায় আমাকে মারধর করে।’’ মারধর দেখে সৌমেশ্বরবাবুর বাড়ির লোকজন ও পড়শি কয়েকজন ছুটে এলে তাঁদেরও ধাক্কা মেরে মাটিতে ফেলে দেওয়া হয় বলে অভিযোগ। এর পরে পাড়ার আরও লোকজন জড়ো হলে অভিযুক্ত যুবকেরা চম্পট দেয়।

এলাকাবাসীর একাংশের অভিযোগ, এখানে প্রায়ই অসামাজিক কাজকর্মের আসর বসায় দুষ্কৃতীরা। মাঝে-মধ্যে পুলিশ অভিযান চালালে কিছুদিন আসর বন্ধ থাকে। তবে অভিযান বন্ধ হলেই ফের তা শুরু হয়। এলাকাবাসীর কাছ থেকে অভিযোগ পেয়ে বুধবার সন্ধ্যা থেকে বৃহস্পতিবার দুপুর পর্যন্ত বার কয়েক ওই এলাকায় টহল দেওয়ার কথা জানিয়েছে আসানসোল দক্ষিণথানার পুলিশ।পুলিশ জানায়, অভিযুক্তদের খোঁজে তল্লাশি চলছে। পুলিশের আশ্বাস, দ্রুত অভিযুক্তদের পাকড়াও করা হবে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন