• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

চিহ্নিত ৬০ রাস্তা, পুজোর আগেই সংস্কার হাওড়ায়

road
বেহাল: পিচের আস্তরণ উঠে এমনই অবস্থা হাওড়ার বেনারস রোডের। মঙ্গলবার। ছবি: দীপঙ্কর মজুমদার

বৃষ্টি থামলে পুজোর আগেই হাওড়ার ভাঙাচোরা রাস্তাগুলির সংস্কার করা হবে। এ জন্য যে ৬০টি গুরুত্বপূর্ণ রাস্তার নাম তালিকায় রয়েছে, তার মধ্যে ১৫টি রাস্তা রাজ্য সরকারের পথশ্রী প্রকল্পের আওতায়। সেই রাস্তাগুলি মেরামত করার দায়িত্ব কেএমডিএ-র। বর্তমানে কোন রাস্তা অবিলম্বে সারানো প্রয়োজন এবং কোন রাস্তা পথশ্রী প্রকল্পের আওতায় মেরামত করা হবে— তা সরেজমিন দেখতে মঙ্গলবার হাওড়া পুরসভার বিভিন্ন ওয়ার্ড ঘুরে দেখলেন পুর কমিশনার এবং পুর ইঞ্জিনিয়ারেরা। 

হাওড়া পুরসভা সূত্রের খবর, ২০১৮ সালের ডিসেম্বরে পুরসভার নির্বাচিত বোর্ডের মেয়াদ শেষ হওয়ার আগে থেকেই পুর এলাকার অধিকাংশ রাস্তা সারাইয়ের কাজ বন্ধ হয়ে যায়। তার পর থেকে গত দু’বছর কোনও রাস্তা তৈরি বা সংস্কারের জন্য টেন্ডার ডাকা হয়নি। ফলে প্রতি বছর বর্ষার আগেই খানাখন্দে ভরে যায় অধিকাংশ রাস্তা। তার পরে বর্ষায় তাদের অবস্থা ভয়াবহ হয়ে ওঠে। বিশেষত লিলুয়া, বেনারস রোড, ডবসন রোড, ড্রেনেজ ক্যানাল রোড-সহ শিবপুর ও কদমতলা এলাকার বেশ কিছু রাস্তার এতটাই বেহাল অবস্থা যে, প্রায়ই সেখানে দুর্ঘটনা ঘটে। পেভার ব্লক ও ঝামা ইট দিয়ে রাস্তায় তাপ্পি দেওয়ার চেষ্টা হলেও জমা জলে তা সহজেই উঠে যায়।   

পরিস্থিতি বিবেচনা করে মঙ্গলবার রাস্তাগুলির অবস্থা দেখতে বেরোন পুর কমিশনার ধবল জৈন। ড্রেনেজ ক্যানেল রোড, লিলুয়ার বিভিন্ন রাস্তা পরিদর্শন করেন তিনি। পরে পুরসভার এক পদস্থ কর্তা জানান, পুরসভার রাস্তা মেরামত দফতরের পক্ষ থেকে মোট ৬০টি রাস্তাকে সংস্কার করার জন্য বেছে নেওয়া হয়েছিল। তার মধ্যে বর্তমানে রাজ্য সরকারের পথশ্রী প্রকল্পে ১৫টি রাস্তা রয়েছে। সেই রাস্তাগুলিরও কী অবস্থা, তা-ও এ দিন খতিয়ে দেখা হয়। 

পুরসভার ওই আধিকারিক বলেন, ‘‘বৃষ্টি কমলেই পুজোর আগে কোন কোন রাস্তা জরুরি ভিত্তিতে মেরামত করা হবে, তা সমীক্ষা করে দেখা হল। অধিকাংশ রাস্তা থেকে জমা জল নেমে যাওয়ায় অবস্থাটা এ বার ভাল করে বোঝা যাবে। সংস্কারের জন্য টেন্ডার ডাকা হয়ে গিয়েছে। বৃষ্টি কমলেই সংস্কারের কাজ শুরু হবে।’’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন