• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

দোষীর ফাঁসি চেয়ে প্রশ্নের মুখে তৃণমূল

পথে নামতে সপ্তাহপার!

TMC
হলদিয়ায় তৃণমূলের প্রতিবাদ মিছিল। মঙ্গলবার। নিজস্ব চিত্র

ঘটনার পর কেটে গিয়েছে এক সপ্তাহ। দিন দু’য়েক আগে ধরা পড়েছে অভিযুক্ত। সেই অভিযুক্তের ফাঁসির দাবিতেই মঙ্গলবার রাস্তায় নামল হলদিয়া শহর মহিলা তৃণমূল।

হলদিয়ায় মা-মেয়ের জোড়া খুনে ধৃত শেখ সাদ্দাম এবং শেখ মনজুর আলম মল্লিকের তৃণমূল ঘনিষ্ঠতার অভিযোগ নিয়ে ইতিমধ্যে বিঁধেছে বিজেপি। সেই সূত্রের সাদ্দামের একগুচ্ছ ছবি সোমবার তারা প্রকাশ্যেও এনেছে। এবার বিজেপি’র প্রশ্ন, ঘটনার সাতদিন পরে কেন রাস্তায় নামল শাসকদল। প্রশ্ন উঠছে, তবে কি সাদ্দামের সঙ্গে শুভেন্দু অধিকারীর মতো শাসকদলের শীর্ষ নেতার ছবি সমাজ মাধ্যমে প্রকাশ্যে আসতেই ভাবমূর্তি উদ্ধারে তৎপর তৃণমূল!

এই চাপানউতোরের মধ্যেই এ দিন দুর্গাচকের নিউ মার্কেট থেকে হলদিয়া মহিলা থানা পর্যন্ত মিছিল করে তৃণমূল। নেতৃত্ব দেন জেলা পরিষদের শিক্ষা কর্মাধ্যক্ষ তথা শহর মহিলা তৃণমূলের সভানেত্রী মধুরিমা মণ্ডল। ছিলেন গার্গী মুখোপাধ্যায়, জয়ন্তী  দণ্ডপাট ও অন্য মহিলা কাউন্সিলরেরা। মিছিল শেষে মহিলা থানার সামনেই তৃণমূলের নেতা-কর্মীরা স্লোগান দেন ‘হত্যাকারীর ফাঁসি চাই’। ওই স্লোগান যখন উঠেছে, তখন ঢিল ছোঁড়া দূরত্বে থানার লক-আপে বসে সাদ্দাম। তার কানেও পৌঁছেছে সেই ফাঁসির দাবি।  

শিল্পশহরে দুই মহিলার দগ্ধ দেহ উদ্ধারের ঘটনায় বামেরা ছাড়া গত কয়েকদিনে সে ভাবে কোনও রাজনৈতিক দলকে প্রতিবাদ-মিছিল করতে দেখা যায়নি। এ নিয়ে সমাজ মাধ্যমে চর্চাও হয়েছে। এ দিন তৃণমূলের ওই কর্মসূচি শেষে বিজেপির জেলা (তমলুক) সভাপতি নবারুণ নায়েক বলেন, ‘‘সাতদিন আগের ঘটনায় এখন প্রতিবাদ করছে তৃণমূল। এতদিন কি নাকে সর্ষের তেল দিয়ে ঘুমোচ্ছিল? আসলে সাদ্দাম যখন ভোট লুট করেছিল, তখন তাদের কাছে ও খুব ভাল ছেলে। এখন সোশ্যাল মিডিয়ায় তৃণমূল নেতাদের সঙ্গে সাদ্দামের ছবি প্রকাশ পাওয়ায় ওই নেতাদের মাথায় বাজ পড়েছে।’’

যদিও তৃণমূলের জেলা নেত্রী মধুরিমা বলছেন, ‘‘অপরাধীর কোনও রাজনৈতিক পরিচয় হয় না। এত দিন পরে নয়, ঘটনা পর থেকেই আমাদের মহিলা সদস্যেরা ফেসবুকে প্রতিবাদের  ঝড় তুলে দিয়েছেন।’’ 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন