• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

দিবাকরের শূন্যস্থানে কে, জল্পনা তৃণমূলের অন্দরে

Who will replace Dibakar Jana, speculation over TMC
প্রতীকী চিত্র

কোলাঘাট তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের  আধিকারিককে মারধরের অভিযোগে গ্রেফতার হয়েছেন শহিদ মাতঙ্গিনী পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি দিবাকর জানা। ওই ঘটনার পর তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের তৃণমূল নিয়ন্ত্রিত ঠিকা শ্রমিক ইউনিয়ন ও দল থেকে সাসপেন্ড করা হয়েছে দিবাকরকে। এরপরে শনিবার  শহিদ মাতঙ্গিনী ব্লক তৃণমূলের বর্ধিত সভায় উপস্থিত হয়ে রাজ্যের পরিবহণ মন্ত্রী শুভেন্দু অধিকারী দিবাকরের নাম না করে বুঝিয়ে দিয়েছেন দল তাঁর পাশে নেই।

শহিদ মাতঙ্গিনী ব্লকে দলীয় সংগঠনের দায়িত্ব আপাতত দলের ব্লক আহ্বায়ক শরৎ মেট্যার হাতে থাকবে। কোলাঘাট তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্র এবং তমলুকের সোনাপেত্যা টোলপ্লাজায় শ্রমিক ইউনিয়নের দেখাশোনা কারা করবেন তা নিয়ে আইএনটিটিইউসি’র জেলা সভাপতি দিব্যেন্দু রায়,  জেলা কার্যকরী সভাপতি শিবনাথ সরকার এবং  জেলা পরিষদের মেন্টর পদে থাকা কোলাঘাটের তৃণমূল নেতা অসিত বন্দ্যোপাধ্যায় শ্রমিকদের সাথে কথা বলে জেলা নেতৃত্বকে রিপোর্ট দেবেন।

দলীয় সূত্রে খবর, দল ও তাপবিদ্যুৎ কেন্দ্রের শ্রমিক ইউনিয়ন থেকে দিবাকরকে সাসপেন্ড করার পর  পঞ্চায়েত  সমিতির সভাপতির পদ থেকেও সরিয়ে দেওয়ার প্রস্তুতি শুরু হয়েছে। শনিবার ব্লক তৃণমূলের বর্ধিত সভায় শুভেন্দু এমনই ইঙ্গিত দিয়ে জানিয়ে দেন,  পঞ্চায়েত সমিতির কাজের বিষয়ে দলের জেলা সভাপতি শীঘ্রই গাইড লাইন পাঠিয়ে দেবেন। আর এরপরেই  ব্লক তৃণমূলের অন্দরে পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতির দায়িত্ব কাকে দেওয়া হবে তা নিয়ে জল্পনা শুরু হয়ে গিয়েছে।

তৃণমূলের একাংশের মতে, গত ১০ ফেব্রুয়ারি দিবাকর গ্রেফতার হওয়ার পর আদালতের নির্দেশে জেল হেফাজতে থাকায় পঞ্চায়ত সমিতির সভাপতির কাজ নিয়ে অচলাবস্থা তৈরি হয়েছে। সভাপতির দায়িত্ব সহ-সভাপতির হাতে হস্তান্তর করতে আইনি প্রক্রিয়ার প্রস্তুতি নেওয়া হচ্ছে বলে দলীয় সূত্রে খবর। দলের একাংশের মতে বর্তমানে সহ- সভাপতি পদে থাকা শোভা সাউ আগেও পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি পদে ছিলেন। তাই তাঁকে ফের সভাপতির দায়িত্ব দেওয়া নিয়ে আইনি দিকগুলি খতিয়ে দেখা হচ্ছে। আবার দলের অন্য অংশের মতে, দিবাকর বর্তমানে জেল হেফাজতে থাকার কারণে পঞ্চায়েত সমিতির অফিসে আসতে পারেননি ঠিকই। তবে সরকারি নিয়ম মেনে পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতির পদ থেকে অপসারণ না করা পর্যন্ত তিনিই সভাপতি হিসেবে থাকবেন।

তৃণমূলের ব্লক আহ্বায়ক শরৎ মেট্যা বলেন, ‘‘পঞ্চায়েতর সমিতির অফিসে আসা সাধারণ মানুষের কাজে যাতে কোনও অসুবিধা না হয় ও এলাকার উন্নয়ন ব্যাহত না হয়, সেজন্য দলের জেলা নেতৃত্বের নির্দেশ মেনে পরবর্তী পদক্ষেপ করা হবে।’’  

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন