• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

পণের দাবিতে গৃহবধূকে বিষ খাইয়ে খুনের অভিযোগে গ্রেফতার শ্বশুর

Murder
শাটারস্টক থেকে নেওয়া প্রতীকী চিত্র।

পণের দাবিতে গৃহবধূকে বিষ খাইয়ে খুনের অভিযোগ উঠল উত্তর দিনাজপুরের রায়গঞ্জে। অভিযুক্ত স্বামী এবং শ্বশুরবাড়ির লোকজন। ঘটনার পর থেকে পলাতক অভিযুক্ত স্বামী। তবে গ্রেফতার হয়েছেন মৃতের শ্বশুর।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে মৃতের নাম ত্রিফলা বর্মন (২০)। রায়গঞ্জের শেরপুর গ্রাম পঞ্চায়েতের বন্যাগাড়া গ্রামের বাসিন্দা ছিলেন। মৃতের বাপেরবাড়ির তরফে জানানো হয়েছে, ২ বছর আগে বাড়ির অমতে পালিয়ে বিয়ে করেন গোপাল বর্মন ও ত্রিফলা। অভিযোগ তার পর থেকেই গাড়ি টাকা পয়সার দাবিতে ত্রিফলার উপর শারীরিক ও মানসিক নির্যাতন শুরু হয়। সম্প্রতি সেই অত্যাচার চরমে উঠে। অভিযোগ বৃহস্পতিবার ত্রিফলাকে বিষ খাওয়ানো হয়।

বিকেলে ত্রিফলাকে প্রথমে রায়গঞ্জ মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল এবং রাত্রে সেখান থেকে রায়গঞ্জের একটি নার্সিংহোমে স্থানান্তরিত করা হয়। শুক্রবার দুপুরে মৃত্যু হয় ত্রিফলার। তারপরই পুলিশের দ্বারস্থ হয় ত্রিফলার বাপেরবাড়ির লোকজন।

রায়গঞ্জ থানায় অভিযোগ দায়ের হয় গোপাল, শ্বশুর আনন্দ বর্মন-সহ পরিবারের অন্য সদস্যদের বিরুদ্ধে। ঘটনার পর থেকে পলাতক গোপাল। তবে আনন্দ বর্মনকে গ্রেফতার করে পুলিশ। আনন্দের দাবি স্বামী-স্ত্রীর বিবাদের জেরেই ত্রিফলা বিষ খেতে আত্মঘাতী হয়েছে। পুলিশ দেহটি ময়নাতদন্তের জন্য রায়গঞ্জ মেডিক্যালের মর্গে পাঠিয়েছে।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন