• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

কর্মীদের চাঙ্গা করতে বুথ সভা

main
প্রতীকী ছবি।

নতুন নাগরিকত্ব আইন ও এনআরসি নিয়ে অনেক জায়গাতেই কোণঠাসা দলের নেতা-কর্মীরা। এই অবস্থায় উপনির্বাচনের আগে তাঁদের মনোবল বাড়াতে শুক্রবার থেকে ফালাকাটা বিধানসভা এলাকায় প্রতি বুথ ধরে বৈঠক শুরু করলেন বিজেপির আলিপুরদুয়ার জেলার নেতারা।

এ দিন ১৪ নম্বর মণ্ডলের বুথগুলিতে এই বৈঠক হয়। এক সপ্তাহের মধ্যে বিধানসভা এলাকার বাকি বুথগুলিতেও এই বৈঠক হবে বলে বিজেপি সূত্রের খবর। তবে প্রকাশ্যে দলের নেতাদের দাবি, ১৫ মার্চ থেকে শুরু হওয়া ‘প্রিয় সম্পর্ক যাত্রা’ নিয়েই তাঁদের এই বুথ ধরে বৈঠক শুরু হয়েছে। বিধানসভা নির্বাচনের প্রস্তুতিতে নামা দলের নেতা-কর্মীদের মনোবল ভালই রয়েছে।

তৃণমূল বিধায়ক অনিল অধিকারীর মৃত্যুর জেরে ফালাকাটায় বিধানসভার উপনির্বাচন আসন্ন। ২০১১ সালে রাজ্যে পালা বদলের সময় থেকে যে বিধানসভাটি কার্যত তৃণমূলের গড় হিসাবে পরিণত হয়েছিল। কিন্তু গত বছর লোকসভা নির্বাচনে এই বিধানসভা এলাকায় বিজেপি প্রার্থীর চেয়ে প্রায় ২৭ হাজার ভোটে পিছিয়ে থাকতে হয় তৃণমূলকে। যার জেরে দলের বিধায়কের মৃত্যুর পরপরই উপনির্বাচনের প্রস্তুতি শুরু করে দেন তৃণমূল নেতারা। অন্যদিকে, উপনির্বাচনে লোকসভা ভোটের ফল ধরে রাখতে ময়দানে ঝাঁপান বিজেপির আলিপুরদুয়ার জেলা নেতারাও।

রাজনৈতিক সূত্রের খবর, সম্প্রতি রাজ্যের তিনটি উপনির্বাচনে হারের পর যথেষ্টই হতাশ ফালাকাটার স্থানীয় বিজেপি নেতা-কর্মীদের একটা বড় অংশ। এরই মাঝে আবার নতুন নাগরিকত্ব আইন চালুর পর দেশের বাকি অংশের সঙ্গে ফালাকাটার বাসিন্দাদের মধ্যেও এনআরসি আতঙ্ক বেড়েছে। সম্প্রতি নতুন আইনের পক্ষে ওই বিধানসভা এলাকায় প্রচার করতে গিয়ে সেটা বুঝতেও পেরেছেন নেতা-কর্মীদের অনেকে। বিজেপি সূত্রের খবর, এই অবস্থায় বিধানসভার উপ নির্বাচনের আগে দলের ফালাকাটার নেতা-কর্মীদের মনোবল চাঙ্গা করতে চান দলের জেলা শীর্ষ নেতৃত্ব। আর সেই লক্ষ্যেই শুক্রবার থেকে শুরু হয়েছে বুথ ভিত্তিক বৈঠক।

বিজেপি সূত্রের খবর, এ দিন ১৪ নম্বর মণ্ডলের বিভিন্ন বুথের বৈঠকে দলের জেলা নেতাদের পাশাপাশি বিভিন্ন মণ্ডলের নেতারাও ছিলেন। আগামী এক সপ্তাহের মধ্যে ওই বিধানসভা এলাকার ২৬৬টি বুথের সবক’টিতে এই বৈঠক শেষ করার ‘লক্ষ্যমাত্রা’ নিয়েছেন বিজেপির জেলা শীর্ষ নেতৃত্ব। তবে এর সঙ্গে নেতা-কর্মীদের মনোবল বাড়ানোর কথা শীর্ষ নেতারা মানতে চাননি। জেলা সভাপতি গঙ্গাপ্রসাদ শর্মা সাফ বলেন, ‘‘আমাদের ফালাকাটার নেতা-কর্মীদের মনোবল যথেষ্ট চাঙ্গা রয়েছে। নতুন আইন নিয়েও ফালাকাটার মানুষ খুশি।’’ আগামী ১৫মার্চ থেকে শুরু হওয়া প্রিয় সম্পর্ক অভিযান ফালাকাটায় আমরা খুব ভাল করে করতে চাইছি। সেজন্যই এই বৈঠক। গঙ্গাপ্রসাদ বলেন, প্রিয় সম্পর্ক অভিযানে দলের নেতা-কর্মীরা কেন্দ্রীয় সরকারের বিভিন্ন উন্নয়নমূলক কাজ সহ নতুন আইনের সমর্থনেও মানুষের কাছে প্রচার করবেন। সেইসঙ্গে তৃণমূল পরিচালিত রাজ্য সরকারের দুর্নীতির কথাও তাঁরা মানুষকে বলবেন।  

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন