চকবাজারে বিনয়, প্রচারে বিস্তা
চকবাজারের সভায় মোর্চা ও তৃণমূলের প্রথম সারির প্রায় সব নেতাই উপস্থিত ছিলেন।
binay tamang

—ফাইল চিত্র।

হাতে আর মাত্র কয়েক ঘণ্টা সময়। তাই বৃহস্পতিবার শেষ লগ্নের প্রচারে মেতে উঠল দার্জিলিং। এ দিন বিনয়পন্থী মোর্চা ও তৃণমূলের যৌথ উদ্যোগে চকবাজারে বিনয়ের সমর্থনে সভা হয়। সেই সভায় উপচে পরে ভিড়। সভা থেকেই পাহাড় তৃণমূলের সভাপতি এলবি রাই বলেন, ‘‘ভোটে জিতে মন্ত্রী হয়ে রাজ্য সরকারের প্রতিনিধি হিসেবে পাহাড়ের উন্নয়নের কাজ করবেন বিনয়।’’ দীর্ঘ ১ ঘণ্টা ১০ মিনিটের বক্তব্যে পাহাড়ের বাসিন্দাদের প্রতিটি সমস্যা সমাধানের শপথ নেন বিনয় তামাং। এ দিন বিভিন্ন এলাকায় প্রচার করেন বিজেপি জোট প্রার্থী নীরজ জিম্বা এবং অন্য প্রার্থীরাও। আজ, শুক্রবার প্রচারের শেষ দিনে চৌরাস্তা থেকে র‌্যালি করার কথা বিজেপি জোটের।

চকবাজারের সভায় মোর্চা ও তৃণমূলের প্রথম সারির প্রায় সব নেতাই উপস্থিত ছিলেন। বিনয় বলেন, ‘‘পাহাড়বাসীর পাট্টার সমস্যা, চা শ্রমিকদের ন্যূনতম মজুরি-সহ বিভিন্ন দাবিতে আমরাই শুধু লড়াই করছি।’’ 

যে সিংটাম চা বাগান এলাকা দিয়ে বিমল গুরুং পালিয়েছিলেন বলে প্রশাসনের একটি অংশের দাবি, সেখানে এ দিন প্রচারে গিয়েছিলেন দার্জিলিং লোকসভা কেন্দ্রে বিজেপি প্রার্থী রাজু বিস্তা। নীরজ জিম্বার হয়ে প্রচার করছেন তিনি। রাজুর অভিযোগ, ‘‘তৃণমূল ও বিনয়পন্থী মোর্চা বহু মানুষকে মিথ্যা মামলায় ফাঁসিয়ে পাহাড় ছাড়া করেছে।’’ পাট্টা না পাওয়ার জন্য রাজ্য সরকার ও জিটিএ-র উপরই দায় চাপান রাজু। যদিও মোর্চার সাধারণ সম্পাদক অনীত থাপার বক্তব্য, ‘‘আইন অনুসারেই কাজ করছে পুলিশ।’’ 

দিল্লি দখলের লড়াইলোকসভা নির্বাচন ২০১৯