• গৌর আচার্য
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ইকোপার্ক, পক্ষিনিবাসে কড়া নিরাপত্তার আশ্বাস

প্রেমের দিনে তৈরি মেনুকার্ডও

ভ্যালেনটাইন্স ডে-র কথা মাথায় রেখে রায়গঞ্জের সুদর্শনপুর থেকে বিদ্রোহী মোড় পর্যন্ত একাধিক বড় রেস্তোরাঁয় বিভিন্ন রকমের খাবার তৈরির উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে। মোহনবাটী এলাকার একটি রেস্তোরাঁর মালিক বাবু পাল ও সুপারমার্কেট এলাকার একটি রেস্তোরাঁর কর্মী সঞ্জয় সরকারের দাবি, এ বছর ভ্যালেনটাইন্স ডে-তে চিকেন, মটন, পনির ও ভেজ বিরিয়ানির মেনু তৈরি করা হবে।

শিলিগুড়ি মোড় ও সুদর্শনপুর এলাকার দুটি রেস্তোরাঁর কর্মী অনুপ দাস ও রঞ্জিত সরকারের দাবি, ভ্যালেনটাইন্স ডে-তে পোলাও, চিকেন ও মটনের তিনটি পদ, চিকেন ড্রাইফ্রাই ও চিকেন তন্দুরির মেনু তৈরি করা হবে।

তবে কলেজ ও বিশ্ববিদ্যালয়ের একাধিক পড়ুয়াদের সঙ্গে কথা বলে জানা গিয়েছে ভ্যালেনটাইন্স ডে-তে তাদের সকলেরই বেশিরভাগ পছন্দের জায়গা কুলিক পক্ষিনিবাস বা ইকোপার্ক।

রায়গঞ্জ বিশ্ববিদ্যালয়ের দ্বিতীয় বর্ষের ছাত্র সাগ্নিক চৌধুরী জানান, ভ্যালেনটাইন্স ডে-তে পক্ষিনিবাসেই যাবেন। নাম প্রকাশে অনিচ্ছ্বক রায়গঞ্জ সুরেন্দ্রনাথ কলেজের প্রথম বর্ষের এক ছাত্রী জানান, শহরের পার্কগুলিতে চেনা পরিচিতরা থাকেন, তাই এই দিনটি উদযাপন করতে দিনভর ইকোপার্কেই কাটাবেন।

শুধু পার্ক বা পক্ষিনিবাসই নয়। এ বছর শহরের একাধিক সিনেমা হলে গিয়ে একান্তে সময় কাটানোরও সিদ্ধান্ত নিয়েছে কিছু স্কুল পড়ুয়া প্রেমিক প্রেমিকা। শহরের একটি নামি স্কুলের একাদশ শ্রেণির এক ছাত্রী বলেন, ‘‘বাবা মা জানতে পারলে বাড়ি থেকে বার হওয়াই বন্ধ করে দেবেন। তাই ভ্যালেনটাইন্স ডেতে প্রেমিকের সঙ্গে সিনেমা হলে গিয়ে দুপুরের শো দেখার সিদ্ধান্ত নিয়েছি। আমার প্রেমিক ও আমি একই স্কুলে একই ক্লাসে পড়ি। ফলে ওই দিন বন্ধুদের বাড়িতে যাওয়ার নাম করে আমরা সিনেমা দেখতে যাব।’’

শহরের আরেকটি নামি স্কুলের দ্বাদশ শ্রেণির এক ছাত্রও বলেন, পক্ষিনিবাস বা পার্কে গিয়ে খুব ভিড় হয়। তাই তিনিও ওইদিন প্রেমিকাকে নিয়ে সিনেমা দেখতে যাবেন।

প্রতি বছর এই দিনটায় কুলিক পক্ষিনিবাস, ইকোপার্ক, মিউনিসিপ্যাল পার্ক ও কর্ণজোড়া পার্কে প্রেমিক প্রেমিকাদের ভিড় উপচে পড়ে। সব থেকে বেশি ভিড় দেখা যায় রায়গঞ্জের কুলিক পক্ষিনিবাসের সংরক্ষিত ও অসংরক্ষিত এলাকায়।

কর্ণজোড়া পার্কটি জেলা পরিষদ এবং ইকো পার্ক রায়গঞ্জ পঞ্চায়েত সমিতির অধীনে রয়েছে।

জেলা পরিষদের সহকারী সভাধিপতি পূর্ণেন্দু দে ও রায়গঞ্জ পঞ্চায়েত সমিতির সভাপতি লিয়াকত আলির দাবি, বিশেষ বিশেষ দিনগুলিতে পার্কগুলির পরিকাঠামো যাতে ঠিকঠাক থাকে, তার জন্য বিশেষ নির্দেশ দেওয়া রয়েছে।

রায়গঞ্জ পুরসভার প্রশাসক থেণ্ডুপ নামগিয়েল শেরপা ও রায়গঞ্জের ডিএফও দ্বীপর্ণ দত্তও জানিয়েছেন, বাসিন্দা ও পর্যটকদের ভিড়ের কথা মাথায় রেখে মিউনিসিপ্যাল পার্ক ও পক্ষিনিবাসে পর্যাপ্ত পরিকাঠামো তৈরি রয়েছে।

অন্য দিকে, ভ্যালেনটাইন্স ডে কেন্দ্র করে পক্ষিনিবাস, পার্ক বা শহরের কোথাও ইভটিজিং, মহিলাদের সঙ্গে অশালীন আচরণ বা কোনও গোলমাল রুখতে এ বছর পুলিশের কড়া নজরদারি থাকবে বলে দাবি করেছেন উত্তর দিনাজপুরের পুলিশ সুপার অমিতকুমার ভরত রাঠৌর। তিনি বলেন, ‘‘ভ্যালেনটাইন্স ডে-তে সুষ্ঠু পরিবেশ ও আইনশৃঙ্খলা স্বাভাবিক রাখতে পক্ষিনিবাস, পার্ক সহ শহরের সর্বত্র সাধারণ ও সাদা পোশাকের পুলিশের নজরদারি থাকবে।’’

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন