• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

টাকার জন্যই খুন ফালাকাটার বৃদ্ধা

দুই মেয়ের বিয়ে হয়ে গিয়েছে। আলিপুরদুয়ারের ফালাকাটার বিবেকানন্দ পল্লির বাসিন্দা বৃদ্ধা নীতি নাথের দিন কাটতো একা একাই। পাশের বাড়ির দিব্যেন্দু ধরকে নাতির মতো ভালবাসতেন। মাঝেমধ্যেই তাকে বাড়িতে ডেকে খাওয়াতেন। এক সঙ্গে টেলিভিশনও দেখতেন। সুখ-দুঃখের গল্পও করতেন।

টাকার লোভে শুক্রবার রাতে সেই দিব্যেন্দুই তাঁকে খুন করেছে বলে প্রাথমিক তদন্তের পরে পুলিশের সন্দেহ। পুলিশের দাবি, দিব্যেন্দু নিজেই খুনের কথা কবুল করেছেন। পুলিশ জানিয়েছে, দিব্যেন্দু থাকে তার ঠাকুমার কাছে। সম্প্রতি প্রেমে পড়েছেন। তিনি একটি সোনার দোকানে কাজ করেন। কিন্তু সেই রোজগারে কুলিয়ে উঠতে পারছিলেন না। নীতিদেবীর সঙ্গে মিশে তার মনে হয়েছিল, ওই বৃদ্ধার যথেষ্ট টাকাপয়সা রয়েছে। সেই টাকার লোভেই বছর পঁচিশের দিব্যেন্দু নীতিদেবীকে খুন করেছে বলে পুলিশের দাবি। নীতিদেবীকে প্রথমে গলায় দড়ি বেঁধে শ্বাসরোধ করা হয়। তারপরে মাছ কাটার বঁটি দিয়ে নীতিদেবীর গলায় মুখে কোপ মারা হয়েছে।

আলিপুরদুয়ারের মহকুমা পুলিশ আধিকারিক পার্থপ্রতিম মজুমদার বলেন, “রবিবার সকালে সন্দেহভাজন হিসেবে দিব্যেন্দুকে জিজ্ঞাসাবাদ করতেই খুনের কথা স্বীকার করে সে। প্রেমের খরচ যোগাতেই ঘনিষ্ঠ দিদিমাকে খুনের মতলব করে বলে স্বীকার করেছে যুবক।’’ পুলিশ জানিয়েছে, ধৃতের বাড়ি থেকে মোবাইল, মানিব্যাগ ও বৃদ্ধার হাতের সোনার চুরি উদ্ধার করা হয়। তবে পুলিশ জানিয়েছে, দিব্যেন্দু স্বীকার করেছে যে, সে খুব বেশি কিছু ওই বৃদ্ধার ঘর থেকে পায়নি।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন