• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

পুলিশের উপরে ‘হামলা’, নেতা ধৃত

Arrest
প্রতীকী ছবি।

পুলিশের উপরে হামলার অভিযোগে বিজেপির পুরুলিয়া জেলা সম্পাদক শঙ্কর মাহাতোকে গ্রেফতার করা হল। এ নিয়ে ফের সরগরম পুরুলিয়ার জেলা রাজনীতি।

ঝালদার নয়াডি পঞ্চায়েতের পাপড়াহুড়ুম গ্রামের বাসিন্দা ওই বিজেপি নেতাকে বুধবার রাতে তাঁর বাড়ি থেকে গ্রেফতার করা হয়। বৃহস্পতিবার পুরুলিয়া আদালতে হাজির করানো হলে বিচারক তাঁকে তিন দিনের পুলিশি হেফাজতে পাঠানোর নির্দেশ দেন।

গত ৬ জানুয়ারি নতুন নাগরিকত্ব আইনের সমর্থনে ঝালদা শহরে মিছিল বার করেন বিজেপি নেতা-কর্মীরা। পুলিশের দাবি, ওই মিছিলের কোনও অনুমতি দেওয়া হয়নি। মিছিল আটকালে পুলিশের সঙ্গে খণ্ডযুদ্ধ হয় বিজেপি কর্মীদের।

পুলিশের দাবি, হামলায় ঝালদা থানার আইসি-সহ বেশ কয়েকজন পুলিশকর্মী জখম হন।

পুরুলিয়ার পুলিশ সুপার এস সেলভামুরুগন জানিয়েছেন, পুলিশের উপরে আক্রমণের ওই ঘটনায় অভিযুক্ত ছিলেন শঙ্করবাবু। গ্রেফতার হওয়া এড়াতে দীর্ঘদিন তিনি গা-ঢাকা দিয়েছিলেন। সূত্র মারফত খবর পেয়ে তাঁকে গ্রেফতার করা হয়েছে।

বিজেপির পুরুলিয়া জেলা সভাপতি বিদ্যাসাগর চক্রবর্তীর দাবি, ‘‘দলের নেতা ছাড়াও, শঙ্করবাবু এলাকায় সমাজকর্মী হিসাবে পরিচিত। তাঁকে অন্যায় ভাবে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।’’

বিদ্যাসাগরবাবুর অভিযোগ, ‘‘পুলিশের একাংশ বিজেপিকে দমাতে এই সব অন্যায় কাজ করছে। আমরা এর তীব্র ভাষায় নিন্দা করছি।’’

এ বিষয়ে পুলিশ সুপারের মন্তব্য, ‘‘এই সব অভিযোগের কোনও ভিত্তি নেই। আইন আইনের পথেই চলবে।’’

সে দিনের ঘটনায় পুরুলিয়ার বিজেপি সাংসদ জ্যোতির্ময় সিং সর্দার-সহ মোট তিনশো বিজেপি নেতা-কর্মীর বিরুদ্ধে মামলা রুজু করে পুলিশ। শঙ্করবাবুকে নিয়ে ওই ঘটনায় এখনও পর্যন্ত মোট ১৬ জনকে গ্রেফতার করেছে পুলিশ।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন