• নিজস্ব সংবাদদাতা 
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

মায়ের মৃতদেহ আঁকড়ে শিশুরা

children
অসহায়: বলরামপুর থানার জুরাডি গ্রামে মৃত বধূর সন্তানেরা। নিজস্ব চিত্র।

ঘরের সদর দরজার কাছে পড়ে মায়ের নিথর দেহ। পাশেই দুই শিশু। এক জনের বয়স এক বছর, অন্য জনের দু’বছর। মাঝে মধ্যেই কাঁদতে কাঁদতে মাকে জড়িয়ে ধরেছে তারা। বুধবার সকালে এমন দৃশ্য দেখে শিউরে উঠলেন বলরামপুর থানার জুরাডি গ্রামের বাসিন্দারা।

পুলিশ সূত্রে জানা গিয়েছে, মৃত মহিলার নাম টুম্পা সিং সর্দার (২৫)। জুরাডিতে তাঁদের বাড়ি থাকলেও স্বামীর সঙ্গে ভাড়াবাড়িতে থাকতেন বলরামপুরে রাঙাডিতে এলাকায়। তাঁর স্বামী শ্রাবণ সিং সর্দার পরিবহণ কর্মী। 

মঙ্গলবার টুম্পা নিজের দুই ছেলেমেয়েকে নিয়ে গ্রামে এসেছিলেন। গ্রামের উপকন্ঠে তাঁদের একটি প্রাধানমন্ত্রী আবাস যোজনার বাড়ি রয়েছে। সেখানে টুম্পা ও তাঁর দুই সন্তান ছাড়া আর কেউ ছিলেন না। বুধবার সকালে স্থানীয় মানুষজনের নজরে পড়ে বাড়ির সদর দরজার কাছে মহিলা পড়ে রয়েছেন। পাশে দুই শিশু। লোকজন চিৎকার করে ডাকাডাকি করেও মহিলার কোনও সাড়া পাননি। শেষে তাঁরা পুলিশকে খবর দেন।

পুলিশ জানিয়েছে, মহিলার মুখে গ্যাঁজলা এবং কপালে চোট রয়েছে। মৃত্যুর কারণ স্পষ্ট নয়। পুলিশ দেহটি উদ্ধার করে ময়না-তদন্তে পাঠায়। পুলিশ জানিয়েছে, টুম্পার স্বামী তাদের কাছে জানিয়েছেন, তাঁর স্ত্রীর মৃগী ছিল। মুখে গ্যাঁজলা ও কপালে চোট দেখে প্রাথমিক তদন্তে পুলিশের অনুমান, মৃগীতে আক্রান্ত হয়ে পড়ে গিয়ে গুরুতর চোট পেয়েও মৃত্যু হয়ে থাকতে পারে। ময়না-তদন্তের রিপোর্টেই মৃত্যুর কারণ জানা যাবে। আপাতত এই ঘটনায় অস্বাভাবিক মৃত্যুর মামলা রুজু করেছে পুলিশ। 

পুলিশ মৃতার স্বামী শ্রাবণকে জিজ্ঞাসাবাদ করছে। তাঁদের দুই নাবালক সন্তানকে চাইল্ড লাইনে পাঠানো হয়েছে।

এবার শুধু খবর পড়া নয়, খবর দেখাও। সাবস্ক্রাইব করুন আমাদের YouTube Channel - এ।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন