• নিজস্ব সংবাদদাতা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

রাস্তা বেহাল, বাসিন্দাদের বিক্ষোভ

protest
মিছিলে প্ল্যাকার্ড হাতে শামিল খুদে। বিষ্ণুপুরে। ছবি: শুভ্র মিত্র

বেহাল রাস্তা নিয়ে প্রতিবাদ জানাতে পথে নামলেন বাঁকুড়ার বিষ্ণুপুর পুরসভার ২ নম্বর ওয়ার্ডের শ্যামবাঁধ লোহারপাড়া ও আদিবাসীপাড়ার বাসিন্দারা। সোমবার বিষ্ণুপুর পুরপ্রশাসকের কাছে এ নিয়ে স্মারকলিপিও জনা দেন তাঁরা। তার আগে জল-ভর্তি রাস্তায় দাঁড়িয়ে বিক্ষোভ দেখান প্রায় হাজার খানেক স্থানীয় মানুষ। 

স্থানীয় সূত্রে জানা যায়, বিষ্ণুপুর শ্মশানকালী মন্দির থেকে শ্যামবাঁধ লোহারপাড়া পর্যন্ত প্রায় এক কিলোমিটার রাস্তা দীর্ঘদিন ধরেই বেহাল। পুর কর্তৃপক্ষকে বারবার বিষয়টি জানিয়েও কোনও লাভ হয়নি বলে অভিযোগ। তার পরে এ দিন শ্যামবাঁধ, ময়রাপুকুর, পাটপুর, ঘুটবন ও শ্মশানকালী চত্বর এলাকার প্রায় হাজার খানেক বাসিন্দা জল-ভর্তি রাস্তায় নেমে বিক্ষোভ দেখান। বিক্ষোভকারীদের মধ্যে ময়রাপুকুর গ্রামের বচন লোহার, পাটপুর গ্রামের জগন্নাথ টুডু, ঘটবনের কার্তিক লোহারেরা অভিযোগ করেন, “পুরসভায় বাস করেও মনে হবে জঙ্গলে পড়ে আছি। কয়েকবছর ধরে রাস্তা বেহাল। অথচ, তা সংস্কারের কোনও ভাবনা নেই পুরসভার। সরকারি বিভিন্ন পরিষেবা থেকে বঞ্চিত আমরা। পুরসভার অলিগলি যদি কংক্রিটের হতে পারে, তবে আমাদের যাতায়াতের এই রাস্তা এত দিন ধরে বেহাল কেন?” 

বিক্ষোভকারীদের দাবি প্রসঙ্গে এ দিন পুর-প্রশাসক শামাপ্রসাদ মুখোপাধ্যায় বলেন, “এখন রাস্তা তৈরির টাকা নেই। তবে দিন দশেকের মধ্যে মোরাম ও পাথর দিয়ে রাস্তা চলাচলের উপযুক্ত করে দেওয়া হবে।” যদিও পুরদফতরের আর্থিক সঙ্কটের দাবি মানতে নারাজ বিক্ষোভকারীরা। পুর কর্তৃপক্ষের সদিচ্ছার অভাব রয়েছে বলে অভিযোগ তাঁদের। পাশাপাশি, রাস্তার সমস্যা না মিটলে প্রয়োজনে বড় কর্মসূচি নেওয়া হবে বলে হুঁশিয়ারি দেন তাঁরা।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন