গত সপ্তাহে বিদ্যাসাগর কলেজে যাহা ঘটিয়া গেল, তাহার মধ্যে তাই দোষী পক্ষ খুঁজিয়া চুল ছিঁড়িয়া লাভ নাই।
১৯ মে, ২০১৯
Polling agents
অঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়
ভোট কাকে দেবেন অথবা দেবেন না, তা তো স্থির করবেন ভোটদাতা স্বয়ং। কিন্তু তাঁর বাড়ি থেকে ভোটগ্রহণ কেন্দ্র পর্যন্ত যাওয়াটাকে নিশ্চিত করতে হবে প্রশাসনকে, নিশ্চিত করতে হবে সুষ্ঠু ভোটকেও।
১৯ মে, ২০১৯
gandhi
নীতি নায়ার
প্রজ্ঞা ঠাকুর নাথুরাম গডসেকে ‘দেশভক্ত’ বলেছেন বলে উদারপন্থীদের ক্রোধ স্বাভাবিক।
১৯ মে, ২০১৯
Delhi Diary
প্রেমাংশু চৌধুরী, অগ্নি রায়
আইপিএল-এ দিল্লির টিম নিয়ে এ বার রাজধানীর বাড়তি উৎসাহ দেখে ঋষভ পন্থকেও প্রচারে নামিয়েছিল কমিশন।
১৯ মে, ২০১৯
amit shah rally
এদের সমর্থন করাও কিন্তু ‘অপরাধ’, কারণ কেউ মুসলমান মারতে লোক পাঠায়, আর এরা লোক পাঠায় গণতন্ত্র মারতে! 
১৯ মে, ২০১৯
elction commission
অঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়
নির্বাচনী তিক্ততা বা নির্বাচনী হিংসা পশ্চিমবঙ্গে নতুন কিছু নয়। যে কোনও স্তরের নির্বাচনে হিংসার সাক্ষী হতে অভ্যস্ত হয়ে গিয়েছে এ রাজ্য।
১৮ মে, ২০১৯
Modi Sadhvi
মোহনদাস কর্মচন্দ গাঁধী নামক মানুষটি তাঁহাদের নিকট নোটের উপর ছাপা একটি ছবি বই আর কিছু নহেন।
১৮ মে, ২০১৯
priyanka sharma
এমনিতেই নানা ভাবে এখন এই দেশে বাক্‌স্বাধীনতা যথেষ্ট বিপন্ন। তন্মধ্যে এমন একটি দৃষ্টান্ত থাকিয়া গেলে বাক্‌স্বাধীনতার পরিস্থিতি আরও মন্দ হইবার সম্ভাবনা থাকিতে পারিত।
১৮ মে, ২০১৯
bjp
আফরোজা খাতুন
রক্ষণশীল হিন্দুদের কঠোর ধর্মীয় বিধি থেকে মেয়েদের বার করার জন্য রামমোহন, বিদ্যাসাগরকে প্রতি মুহূর্তে আক্রমণের মুখে পড়তে হয়েছিল।
১৮ মে, ২০১৯
cpm
জাগরী বন্দ্যোপাধ্যায়
হাবভাবটা অনেকাংশে এ রকম— আপাতত তৃণমূলকে হটানোর ‘পবিত্র’ কাজটা বিজেপি করে দিক। তার পর যথাসময়ে সম্প্রীতির সাচ্চা দূত হয়ে আমরা মঞ্চে পুনরবতীর্ণ হব। 
১৮ মে, ২০১৯
goons
যাকে-তাকে চড় মারতে পারা বা দু’চারটে বোম ছুড়তে পারা চাট্টিখানি ক্ষমতার কথা নয়।
১৮ মে, ২০১৯
Pragya Singh Thakur
অঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়
এই ধরনের উদ্‌যাপনে যাঁরা মাতেন, তাঁরা কতখানি সামাজিক তত্ত্ব, তা নিয়ে সংশয়ের অবকাশ যথেষ্টই।
১৭ মে, ২০১৯
central force
‘ব্যতিক্রমী পরিস্থিতি’র যুক্তিতে সপ্তম দফায় রাজ্যের এই বারের ভোট-অধীন নয়টি কেন্দ্রে নির্বাচনী প্রচার অন্য রাজ্যগুলি অপেক্ষা সতেরো ঘণ্টা আগে বন্ধ করিয়া দেওয়া হইয়াছে।
১৭ মে, ২০১৯
vandalization
ভুয়া খবরের চলাচল ঠেকাইবার কোনও কার্যকর উপায় যে এখনও অজ্ঞাত, তাহা প্রমাণ হইয়া গিয়াছে।
১৭ মে, ২০১৯
vandalization
সুকান্ত চৌধুরী
রাজনীতির আখড়ায় শরীর গরম করতে নেমে স্কুলের লেখাপড়ার ও-সব তলানি ঘাঁটতে ভাল লাগে? এ দিকে যতই শাস্ত্র পড়ে থাকুন, তেমন ধার্মিক ছিলেন না, শেষে তো রীতিমতো নাস্তিক হয়ে গিয়েছিলেন।
১৭ মে, ২০১৯
Mamata Banerjee Chandrababu Naidu
প্রেমাংশু চৌধুরী
২০ বছর পর এ বারের লোকসভা ভোটের পরেও কি ১৯৯৯-এর গ্রীষ্মের পুনরাবৃত্তি হতে পারে?
১৭ মে, ২০১৯
Vidyasagar College Vandalization
ভাবলাম, এরা কারা? এরা কি জানে না কার মস্তক ছেদন করল? এ তো বাঙালির জাত্যাভিমানে আঘাত। জাত্যাভিমানে আঘাত করে কোন জাতির মন পাওয়া সম্ভব? লিখছেন দেবদাস আচার্য
১৭ মে, ২০১৯
Border
মুগ্ধ প্রজাপতি সরে গেলে কাঁটাতারের ও পারের নির্বাসিত চরাচরে ঝুপ করে সন্ধ্যা নামে। ঘুটঘুটে অন্ধকার এসে গিলে খায় এই হতভাগ্য নির্বাসিতদের ইহকাল, পরকাল। লিখছেন দেবর্ষি ভট্টাচার্য
১৭ মে, ২০১৯
vidyasagar bust
অঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়
যা ঘটেছে, তা আসলে কোনও একটা কলেজে কোনও একটা মূর্তি ভেঙে যাওয়া নয়। বিদ্যাসাগরের মূর্তি ভাঙার এই ঘটনা আসলে একটা বৃহত্তর প্রতীক।
১৬ মে, ২০১৯
Vidyasagar
যদি বিদ্যাসাগর পরিকল্পিত ভাবে আক্রান্ত হয়ে থাকেন, তবে বাঙালিত্বের ওপর শুধু নয়, এটা দেশের সাংস্কৃতিক ঐতিহ্যের ওপর আক্রমণ।
১৭ মে, ২০১৯
amit shah rally
সেমন্তী ঘোষ
আমরা পরিচিত নই এই গৈরিক মিছিলের সঙ্গে। এই উন্মাদ মুসলিমবিরোধী স্লোগানের সঙ্গে।
১৬ মে, ২০১৯
representative image
অমিতরঞ্জন বসু
সমস্যাটা আরও একটু জটিল যখন গবেষকরা এর সঙ্গে আত্মপ্রেমের (নার্সিসিজ়ম) যোগ খুঁজে পান। আত্মপ্রেমীরা আত্মবিশ্বাসী হওয়ার জন্য সব সময় ঘটনার কেন্দ্রে থাকতে চায়।
১৬ মে, ২০১৯
vidyasagar statue smashed
শিক্ষাকে, উদারবাদকে, গ্রহণশীলতাকে তাচ্ছিল্য করিবার যে প্রবণতাটি ভারতে দ্রুত কায়েম হইতেছে, মঙ্গলবারের ঘটনাক্রমে তাহারই প্রতিফলন।
১৬ মে, ২০১৯
Wine
ভারতে নিয়মিত মদ্যপান করেন পুরুষদের ত্রিশ শতাংশ, মহিলাদের দেড় শতাংশ। এই হার অব্যাহত থাকিলে ২০৫০ সালে মদ্যপানজনিত ক্ষতির পরিমাণ ২০১৮ সালের ভারতের জিডিপির তুলনায় বেশি হইবে।
১৬ মে, ২০১৯
Statue
খাস কলকাতায় বিদ্যাসাগরের নামাঙ্কিত মহাবিদ্যালয়ে ঢুকে তাঁর প্রস্তরমূর্তি ভেঙে দিল ধর্মান্ধ ফ্যাসিস্ট বাহিনী। কলকাতা প্রতিরোধ করতে পারেনি।
১৬ মে, ২০১৯
currency
কোনও রাজনৈতিক পার্টি আর্থিক নীতি ঠিক করে না, ঠিক করে বড় বড় ব্যবসায়িক প্রতিষ্ঠান এবং তাদের পক্ষে থাকা অর্থনীতিবিদ।
১৫ মে, ২০১৯
priyanka
অঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়
প্রিয়ঙ্কা গাঁধীর উপস্থিতিতে 'মোদী মোদী' স্লোগান এই প্রথম বার উঠল না, আগেও তোলা হয়েছে| একবারের জন্যও মেজাজ হারাতে দেখা যায়নি তাঁকে|
১৫ মে, ২০১৯
internet
সুমন সেনগুপ্ত
বেশি পড়াশোনা করতে হবে না, স্মার্ট ফোন থেকে খুললেই জানা যায় সাধারণ কিছু তথ্য— র‌্যাডারের কী কাজ? ভারতে ইন্টারনেট পরিষেবা কবে প্রথম এসেছিল? ইমেল কী?
১৫ মে, ২০১৯
painting
প্রাচীন কাল থেকে আজ পর্যন্ত মানুষের সামাজিক জীবনধারা অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডের সাথে সম্পৃক্ত।
১৫ মে, ২০১৯
election
ধরুন ভোটের সময় সরকারি শিক্ষা প্রতিষ্ঠানগুলি বিশেষত স্কুলগুলি নির্বাচনের প্রয়োজনীয় কাজের জন্য অনেক আগে থেকেই বন্ধ করে দেওয়া হচ্ছে।
১৫ মে, ২০১৯
Surjya Kanta Mishra
যে হেতু বাঙালিরা নিজেদের বাঙালিত্ব সম্বন্ধে অতিশয় লজ্জিত, সে কারণেই নিজেদের মাতৃভাষা বাংলাকে তারা নিকৃষ্ট জ্ঞান করে, আর অতি গর্বের সঙ্গে ইংরেজি ও হিন্দির দাসত্ব করে ধন্য হয়ে থাকে!
১৫ মে, ২০১৯
wildlive
একই মানুষ, দুইটি মুখ। একটি মানবিক, অন্যটি অ-মানবিক। বিস্ময়ের কিছু নাই।
১৫ মে, ২০১৯
kamal haasan
একটি-দুইটি মানুষের কুকর্মের জন্য একটি গোটা ধর্মসমাজ ও ধর্মবোধ বিষয়ে কোনও ধারণা তৈরি করা নিশ্চয় অত্যন্ত ভুল কাজ।
১৫ মে, ২০১৯
election
দেবর্ষি দাস
এক দিকে নয়া-উদার বাজারমুখী নীতি বলছে জনমোহিনী সরকারি খরচ কমাও, অন্য দিকে ভোটে জেতার চাপ।
১৫ মে, ২০১৯
ELECTION
শিবাজীপ্রতিম বসু
তৃণমূল স্তরে কার সমর্থন কোথায় দাঁড়িয়ে, তার ঠিক হদিশ না পাওয়ায় সংখ্যাতত্ত্ব নিয়ে সবাই খানিক ধন্দে।
১৫ মে, ২০১৯
sindhubala Devi
দেহ-মন আওলানো ঝুমুরের সুরে আর ঢোল, লাগড়া, কর্তাল, সানাইয়ের তালে নাচনি এবং তাঁর রসিক মাতিয়ে বেড়ালেন সারা মানভূম।
১৫ মে, ২০১৯
injured
অঞ্জন বন্দ্যোপাধ্যায়
বিরোধী কণ্ঠস্বর দেখলেই তীব্র হিংসার প্রয়োগে স্তব্ধ করার চেষ্টা এক পুরনো অসুখ এ রাজ্যের রাজনীতির। সে অসুখ যেন আরও গভীর হয়ে উঠছে। তীব্রতর হচ্ছে হিংসার দাপট।
১৪ মে, ২০১৯
Narendra Modi
সেনাবাহিনীর টেকনিকাল বিষয়ে প্রধানমন্ত্রীর কি কথা বলিবার অধিকার আছে? সেনা আক্রমণ করিবে কি না, সেই সিদ্ধান্ত অবশ্যই রাজনৈতিক, এবং তাহার পূর্ণ অধিকার প্রধানমন্ত্রীর।
১৪ মে, ২০১৯
examination
সরকারি স্কুলগুলিতে ভর্তির সমস্যা হয়তো কম। কিন্তু তৎপরবর্তী পড়াশোনায় যে বিশেষ যত্নের প্রয়োজন, তাহা অনুপস্থিত। ‘স্পেশাল এডুকেটর’ বা বিশেষ প্রশিক্ষকের সংখ্যা নগণ্য। তাঁহারা কী ভাবে কাজ করিতেছেন, কতগুলি স্কুল পরিদর্শন করিতেছেন— নজরদারির অভাবও যথেষ্ট।
১৪ মে, ২০১৯
আরও খবর