• নিজস্ব প্রতিবেদন
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

সাহস কী করে হয়? বিজেপি নেতাকে তোপ ফারহানের

Farhan Akhtar
বলিউড অভিনেতা ও পরিচালক ফারহান আখতার। ছবি: ফারহানের ইনস্টাগ্রাম পেজের সৌজন্যে।

এ দেশের বেশিরভাগ অভিনেতাদের সাধারণ জ্ঞান এবং বুদ্ধিসুদ্ধি অত্যন্ত কম! এক সংবাদ চ্যানেলে এমনই মন্তব্য করেছিলেন বিজেপি মুখপাত্র জিভিএল নরসিংহ রাও। নেতার এমন মন্তব্য শুনে জবাব দিলেন ফারহান আখতার। বলিউড অভিনেতা তথাপরিচালক ফারহানের টুইট, ‘‘এত সাহস কী করে হয়, স্যর??...’’

 

তামিল ছবি ‘মের্সাল’-এ জিএসটি চালু এবং প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর ডিজিটাল ইন্ডিয়া উদ্যোগের সমালোচনা করে বেশ কয়েকটি দৃশ্য এবং সংলাপ রয়েছে। কয়েকদিন আগে সে বিষয়ে আলোচনা করতে একটি জাতীয় টিভি চ্যানেলে এক সাক্ষাত্কারে যোগ দিয়েছিলেন রাও। সেখানেই তিনি বলেছিলেন, ‘‘যে কোনও ক্ষেত্রেই, দেশের বেশিরভাগ অভিনেতাদের সাধারণ জ্ঞান এবং বুদ্ধিসুদ্ধি অত্যন্ত কম।’’

আরও পড়ুন, পর্দায় জিএসটি-র নিন্দা করে গৈরিক কোপে ‘মের্সাল’

আরও পড়ুন, উইকএন্ড পর(দা)চর্চা

আতলি পরিচালিত তামিল ছবি ‘মের্সাল’অভিনেতা বিজয়ের দিওয়ালি রিলিজ। ১৮ অক্টোবর এই ছবি মুক্তির পর থেকেই শিরোনামে। কারণ, ছবিতে জিএসটি এবং প্রধানমন্ত্রীর ডিজিটাল ইন্ডিয়া প্রকল্পের সমালোচনা করে বেশ কিছু উক্তি রয়েছে।

সোশ্যাল মিডিয়ায় ছড়িয়ে পড়া ‘মের্সাল’-এর ‘বিতর্কিত’ অংশটিতে দেখা যাচ্ছে, নায়ক বিজয় ওরফে ভেট্রি জনতার উদ্দেশে বলছেন, ‘‘সিঙ্গাপুরের লোকে ৭% জিএসটি দেয়, বিনামূল্যে চিকিৎসা পায়। ভারত সরকার ২৮ শতাংশ জিএসটি নেয়। কিন্তু কেন বিনামূল্যে চিকিৎসা দিতে পারে না? আমরা ওষুধের জন্য ১২% জিএসটি দিই, কিন্তু মদে জিএসটি নেই! দেশের সরকারি হাসপাতালগুলোয় অক্সিজেন সিলিন্ডার থাকে না!’’

ছবির এই অংশ নিয়েই আপত্তি তুলেছে বিজেপি। ফারহানের টুইটের পর অবশ্য নতুন করে আর কোনও প্রতিক্রিয়া পাওয়া যায়নি বিজেপির। অন্যদিকে, ছবির উচ্ছ্বসিত প্রশংসা করেছেন কমল হাসান, রজনীকান্তরা।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন