Advertisement
২১ মার্চ ২০২৩

কয়লা নিয়ে জিজ্ঞাসাবাদ মনমোহনকে

কয়লা ব্লক বণ্টন মামলার তদন্তে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংহকে সিবিআই জিজ্ঞাসাবাদ করেছে বলে জানাল সংবাদসংস্থা পিটিআই। তবে একই সঙ্গে তারা বলেছে, সিবিআইয়ের তরফে এই ঘটনার সত্যতা স্বীকার বা অস্বীকার কিছুই করা হয়নি। মনমোহন নিজেও কোনও কথা বলেননি।

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি শেষ আপডেট: ২১ জানুয়ারি ২০১৫ ০৩:২৬
Share: Save:

কয়লা ব্লক বণ্টন মামলার তদন্তে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রী মনমোহন সিংহকে সিবিআই জিজ্ঞাসাবাদ করেছে বলে জানাল সংবাদসংস্থা পিটিআই। তবে একই সঙ্গে তারা বলেছে, সিবিআইয়ের তরফে এই ঘটনার সত্যতা স্বীকার বা অস্বীকার কিছুই করা হয়নি। মনমোহন নিজেও কোনও কথা বলেননি।

Advertisement

যদিও সংবাদসংস্থার বিশ্বস্ত সূত্রের খবর, দু’দিন আগে মনমোহনের বাসভবনে গিয়ে তাঁকে হিন্ডালকো সংস্থার কাছে তালাবিরা দুই ব্লকের কয়লা বণ্টন নিয়ে প্রশ্ন করা হয়। ২০০৫ সালের ৭ মে এবং ১৭ জুন প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে লেখা দু’টি চিঠিতে ওই ব্লকের কয়লা হিন্ডালকো-র নামে করে দেওয়ার জন্য অনুরোধ করেছিলেন শিল্পপতি কুমারমঙ্গলম বিড়লা। সে সময় মনমোহন শুধু প্রধানমন্ত্রীই নন, কয়লা মন্ত্রকও তাঁর অধীনে ছিল।

গত ১৬ ডিসেম্বর সিবিআইয়ের বিশেষ আদালতের বিচারক ভরত পরাশর হিন্ডালকো মামলার ‘ক্লোজার রিপোর্ট’ গ্রহণ না করে আগে এ ব্যাপারে মনমোহনের সঙ্গে কথা বলা ‘সমীচীন’ বলে সিবিআইকে নির্দেশ দিয়েছিলেন। আগামী ২৭ জানুয়ারি সিবিআইয়ের তরফে আদালতে এই মামলাটির ‘স্টেটাস রিপোর্ট’ দাখিল করার কথা। তার আগেই তারা মনমোহনের সঙ্গে কথা বলল বলে জানিয়েছে পিটিআই। সিবিআই মুখপাত্র কাঞ্চন প্রসাদ অবশ্য সংবাদসংস্থার কাছে ঘটনার সত্যতা বা অসত্যতা নিয়ে কোনও মন্তব্যই করতে চাননি।

মনমোহন নিজেও এ ব্যাপারে এখনও অবধি মুখ খোলেননি। তবে প্রাক্তন প্রধানমন্ত্রীর ঘনিষ্ঠ মহল সূত্রের খবর, কয়লা ব্লক বণ্টন মামলার তদন্তে মনমোহন বরাবর সহযোগিতার মনোভাব নিয়েই চলেছেন। এ নিয়ে সংসদের প্রশ্নের উত্তর দিয়েছেন তিনি। যৌথ সংসদীয় কমিটিতে তাঁকে ডাকা হবে কি না, তা নিয়ে যখন বিতর্ক দেখা দিয়েছিল, মনমোহন বলেছিলেন, তিনি রাজি। সুতরাং প্রয়োজনে সিবিআইয়ের কথা বলতেও তাঁর কোনও আপত্তি নেই। যা করার তিনি দলনেত্রী সনিয়া গাঁধীর সঙ্গে কথা বলেই করবেন।

Advertisement

রাজনৈতিক ভাবে কংগ্রেস অবশ্য বিষয়টি নিয়ে কী অবস্থান নেবে, তা এখনও জানা যায়নি। সামনেই দিল্লি বিধানসভা নির্বাচন। তার আগে সব দিক খতিয়ে দেখে যা সিদ্ধান্ত নেওয়ার সনিয়াই নেবেন বলে দলীয় সূত্রে জানানো হয়েছে।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)
Follow us on: Save:
Advertisement
Advertisement

Share this article

CLOSE
Popup Close
Something isn't right! Please refresh.