Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২১ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

সর্বত্রই বেশি ভোট ঝুলিতে আসবে, আশায় বিজেপি

গো-বলয়ের আসল পরীক্ষা এখনও বাকি। সেই যুদ্ধ শুরু হওয়ার আগে আজ পঞ্চম দফায় ভোটদানের হার দেখে কিছুটা স্বস্তিতে বিজেপি। গত চার দফা ভোটের ধাঁচেই আজ

নিজস্ব সংবাদদাতা
নয়াদিল্লি ১৮ এপ্রিল ২০১৪ ০৩:৩৭
Save
Something isn't right! Please refresh.
Popup Close

গো-বলয়ের আসল পরীক্ষা এখনও বাকি। সেই যুদ্ধ শুরু হওয়ার আগে আজ পঞ্চম দফায় ভোটদানের হার দেখে কিছুটা স্বস্তিতে বিজেপি। গত চার দফা ভোটের ধাঁচেই আজও ভোটমুখী ১২টি রাজ্যেই ভোটদানের হার গত বারের তুলনায় গড়ে আট থেকে দশ শতাংশ পর্যন্ত বেড়েছে বলে জানিয়েছে নির্বাচন কমিশন। বাড়তি ওই ভোট তাঁদের ঝুলিতে আসবে বলেই আশায় বুক বাঁধছে বিজেপি।

আজ দেশের ১২টি রাজ্যের ১২১টি আসনে ভোটগ্রহণ হয়েছে। যার মধ্যে রয়েছে বিহার, উত্তরপ্রদেশ, রাজস্থান, কর্নাটক, মধ্যপ্রদেশের মতো রাজ্যগুলি। পশ্চিমবঙ্গের চারটি আসনেও ভোট হয়েছে এ দিন। ভোটের হার বৃদ্ধি প্রসঙ্গে বিজেপি সাংসদ রবিশঙ্কর প্রসাদের বক্তব্য, “নরেন্দ্র মোদীর হাওয়া যে দেশে বইছে, তারই প্রমাণ মিলছে।” দলের পর্যবেক্ষণ, আজ যে রাজ্যগুলিতে ভোট হয়েছে সেগুলিতে ভাল ফল করার সম্ভাবনা রয়েছে বিজেপির। বিশেষ করে পশ্চিম উত্তরপ্রদেশ, কর্নাটক বা রাজস্থানে। এখনও যে সব রাজ্যে ভোট বাকি, তার অনেকগুলিতেই আঞ্চলিক দল শাসকের ভূমিকায়। সেখানে তাদের সঙ্গে পাল্লা দিয়ে কতটা লাভবান হওয়া যায়, ষষ্ঠ দফার ভোট থেকে সেই হিসেব শুরু করবে বিজেপি।

আশি আসনের উত্তরপ্রদেশ থেকে অন্তত ৪০টি জয়ের পরিকল্পনা রয়েছে বিজেপির। সে কারণে ওই রাজ্যের দায়িত্ব দেওয়া হয় মোদী ঘনিষ্ঠ অমিত শাহ-কে। লক্ষ্য, মেরুকরণের রাজনীতিতে তুঙ্গে নিয়ে যাওয়া। পশ্চিম উত্তরপ্রদেশে সেই কাজে অমিত অনেকটাই সফল বলে দাবি বিজেপিরা যদিও দলেরই অনেকে মানছেন, পশ্চিম উত্তরপ্রদেশে মোদী হাওয়া থাকলেও ষষ্ঠ পর্ব থেকে শুরু হচ্ছে সমাজবাদী পার্টি নেতা মুলায়ম সিংহের খাস এলাকা। পশ্চিম উত্তরপ্রদেশে মেরুকরণের হাওয়া থাকলেও পূর্ব উত্তরপ্রদেশে সেই হাওয়া অনেকটাই স্তিমিত। রাজ্যের এই অংশের নির্বাচন হয় সম্পূর্ণ জাতপাতের নিরিখে। মোদী-ঘনিষ্ঠ নেতারা মানছে ন, জাতপাতের রাজনীতিতে মুলায়মের সঙ্গে পাল্লা দেওয়া যথেষ্ট কঠিন। বিজেপির এক নেতার কথায়, “পশ্চিমে আমাদের নিজস্ব শক্তি ছিল। কিন্তু পূর্বে সপা’র সঙ্গে আমাদের লড়তে হবে মোদী হাওয়ার উপর নির্ভর করে।”

Advertisement

তামিলনাড়ুতে বিভিন্ন আঞ্চলিক দলের সঙ্গে রামধনু জোট করে বিজেপি ভোটে নামলেও দক্ষিণে তাদের এক মাত্র ভরসা কর্নাটক। বিধানসভা নির্বাচনে কর্নাটকে পর্যুদস্ত হওয়ার পরে তাই অনেক আপত্তি অগ্রাহ্য করেই দলে ফেরাতে হয়ে দুর্নীতির দায়ে অভিযুক্ত ইয়েদুরাপ্পাকে। বিজেপির নেতৃত্বের আশা, অন্তত নিজের অস্তিত্ব প্রমাণে ওই রাজ্যে ভাল ফল করতে ঝাঁপাবেন ইয়েদুরাপ্পা। আজ রাজ্যে প্রায় দশ শতাংশ ভোট বৃদ্ধি বিজেপির সেই আশার পালে হাওয়া দিয়েছে। আজ রাজস্থানেও ভোট বেড়েছে প্রায় ১৫ শতাংশ। সদ্য ওই রাজ্যে মুখ্যমন্ত্রী হয়েছেন বসুন্ধরা রাজে। ওই রাজ্যেও ভাল ফল হবে বলে আশা বিজেপির। মধ্যপ্রদেশ, বিহার ও ছত্তীসগঢ়ের ভোটের হারেও খুশি তারা।

মোদী হাওয়ার ঝড় মহারাষ্ট্রেও ভাল মতোই রয়েছে বলে দাবি বিজেপি নেতৃত্বের। দলের দাবি, মরাঠা গড় হিসাবে পরিচিত পশ্চিম মহারাষ্ট্র কংগ্রেস ও এনসিপির শক্ত ঘাঁটি হলেও এ বার সেখানে মোদী হাওয়া বইছে।



Something isn't right! Please refresh.

আরও পড়ুন

Advertisement