Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৯ অক্টোবর ২০২১ ই-পেপার

অখিলেশের রাজ্যে ফের কিশোরীর ঝুলন্ত দেহ

সংবাদ সংস্থা
লখিমপুর ২০ ফেব্রুয়ারি ২০১৫ ০৪:১৯

ফের দলিত কিশোরী-ধর্ষণ। ফের গাছ থেকে ঝুলন্ত দেহ। ফের উত্তরপ্রদেশ।

বদায়ুঁর দুই বোনের সঙ্গে নিঘাসান এলাকার তপরপুরওয়া গ্রামের কিশোরীর মিল অনেক। ফারাক শুধু একটাই। বদায়ূঁ-কাণ্ডে প্রথমে ধর্ষণের কথা বলা হলেও পরে সিবিআই দাবি করেছিল, তেমন কিছু ঘটেনি। কিন্তু মঙ্গলবার তপরপুরওয়া থেকে যে কিশোরীর দেহ উদ্ধার হয়েছে তার ময়না-তদন্তের রিপোর্টে ধর্ষণের কথা স্পষ্ট উঠে এসেছে।

উল্লেখ্য, বদায়ূঁ কাণ্ডের প্রথম দিকেও এমন আশঙ্কার করা হয়েছিল। প্রাথমিক ভাবে ময়না-তদন্ত করার পরে যখন ধর্ষণের কথা সামনে আসে, তখন সে আশঙ্কা আরও জোরদার হয়। বিভিন্ন শিবিরে সমালোচনার ঝড় ওঠে। উত্তরপ্রদেশে আইনশৃঙ্খলার হাল যে শোচনীয়, সে কথা বলে শাসক দল সমাজবাদী পার্টিকে নানা ভাবে আক্রমণ করতে শুরু করেন বিরোধীরা। এর পরেই ভোলবদল হয় ঘটনার। সিবিআই দাবি করে,

Advertisement

ধর্ষণের অভিযোগ সঠিক নয়। দুই বোনকে ধর্ষণ করা হয়নি।

খুনের অভিযোগও উড়িয়ে দেয় তারা। কিন্তু এত কিছুর পরেও ওই ঘটনা নিয়ে ধন্দ কাটেনি অনেকেরই। মঙ্গলবার তপরপুরওয়ার কিশোরীর দেহ উদ্ধার হওয়ার পরে তাদের অনেকেরই প্রশ্ন, তা হলে কি বদায়ূঁর ঘটনার পুনরাবৃত্তি হল এখানে?

ঠিক কী হয়েছিল তপরপুরওয়ায়?

পুলিশ জানিয়েছে, মঙ্গলবার সকালে ১৬ বছরের ওই কিশোরীর ঝুলন্ত দেহ উদ্ধার হয়। প্রাথমিক ভাবে তার মা-বাবাও ভেবেছিলেন, মেয়ে আত্মহত্যা করেছে। গত কাল তার ময়না-তদন্তের রিপোর্ট আসে। তখনই জানা যায়, কিশোরীকে ধর্ষণ করা হয়েছিল। বিষয়টি জানার পর তার বাবা গ্রামের দুই যুবকের বিরুদ্ধে ধর্ষণ ও খুনের অভিযোগ দায়ের করেছেন। পুলিশ জানিয়েছে, দুই অভিযুক্তের নাম মনোজ ও ধর্মেশ। তবে তাদের এখনও গ্রেফতার করা হয়নি।

স্বাভাবিক ভাবে এই ঘটনার পর অনেকের মনেই ঘুরেফিরে আসছে বদায়ূঁ-কাণ্ডের কথা। তখনও বিস্তর সমালোচনা হয়েছিল অখিলেশ যাদব প্রশাসনের। বছর ঘোরার আগেই ফের একই রকম ঘটনা। বিরোধী বহুজন সমাজ পার্টির নেতা স্বামীপ্রসাদ মৌর্যের বয়ানে, “গোটা রাজ্যে জঙ্গলের আইন চলছে। মানুষ নিরাপত্তার অভাব বোধ করছেন।” তাঁর অভিযোগ, বিষয়টি বিধানসভায় তোলার চেষ্টা করেছেন তাঁরা। কিন্তু সরকারপক্ষ এড়িয়ে যাচ্ছে।

বিজেপির মুখপাত্র বিজয় বাহাদুর পাঠকের মতে, “আইন-শৃঙ্খলাই আসলে গাছ থেকে ঝুলছে।” একই রকম প্রতিক্রিয়া কংগ্রেসেরও। ঘটনাচক্রে সোমবার উত্তরপ্রদেশের রাজ্যপাল বিধানসভায় যে বক্তৃতা দিয়েছিলেন, তার অন্যতম নির্যাসই ছিল রাজ্যের আইনশৃঙ্খলা পরিস্থিতির উন্নতি। আর তার পরের দিনই ওই কিশোরীর ধর্ষিত দেহ উদ্ধার হল তপরপুরওয়া থেকে।

আরও পড়ুন

Advertisement