Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১৮ জানুয়ারি ২০২২ ই-পেপার

রাহুলকে কটাক্ষ, সাসপেন্ড ভঁবরলাল

সংবাদ সংস্থা
নয়াদিল্লি ০২ জুন ২০১৪ ০২:৫৯

কংগ্রেসের সহসভাপতি রাহুল গাঁধীর বিরুদ্ধে মুখ খুলেছিলেন গত কাল। আর তার ২৪ ঘণ্টার মধ্যেই সাসপেন্ড হলেন রাজস্থানের বিতর্কিত কংগ্রেস বিধায়ক ভঁবরলাল শর্মা।

রাজস্থানের সর্দারশহর কেন্দ্রের কংগ্রেস বিধায়ক ভঁবরলাল লোকসভা নির্বাচনে দলের বিপর্যয়ের জন্য সরাসরি আঙুল তুলেছিলেন রাহুল গাঁধীর বিরুদ্ধে। একেবারে ব্যক্তিগত সেই আক্রমণে রাহুলকে ‘কংগ্রেসি সার্কাসের এমডি’ বলেও কটাক্ষ করেছিলেন তিনি। আর বলেছিলেন, রাহুলকে যাঁরা পরামর্শ দিয়েছেন, তাঁরাও দলের ভরাডুবির জন্য সমান দায়ী। দিন দু’য়েক আগে ঠিক একই ভাবে রাহুলের নেতৃত্বকে আক্রমণ করেছিলেন কেরলের কংগ্রেস বিধায়ক টি এইচ মুস্তাফা। শর্মার মতো তিনিও লোকসভা ভোটে দলের ভরাডুবির জন্য রাহুলকে দায়ী করেছিলেন। কংগ্রেসের সহসভাপতিকে জোকার বলতেও পিছপা হননি মুস্তাফা। শেষমেশ তাঁকে সাসপেন্ড করা হয়। ভঁবরলালের কালকের সেই বিতর্কিত মন্তব্যের পরেই নড়েচড়ে বসেন কংগ্রেস নেতৃত্ব।

আজ প্রদেশ কংগ্রেস মুখপাত্র অর্চনা শর্মা সাংবাদিকদের জানান, ভঁবরলালকে সাসপেন্ড করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে দল। কংগ্রেসের একটি সূত্রের খবর, ভঁবরলাল এর আগেও দল-বিরোধী মন্তব্য করেছেন। আর এখন দল থেকে তাড়ানো হতে পারে আঁচ করেই এ ভাবে রাহুলকে নিয়ে উল্টোপাল্টা মন্তব্য করতে শুরু করেছেন তিনি। কিছু দিন আগে তিনি বসুন্ধরা রাজের সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন বলেও খবর। যদিও সেই খবরের সত্যতা জানা যায়নি।

Advertisement

সাসপেন্ড হওয়ার বিষয়টিকে আমল দিতে চাননি ভঁবরলাল নিজে। সাংবাদিকরা তাঁর সঙ্গে যোগাযোগ করলে তিনি বলেন, “দল থেকে এখনও আমাকে কিছু জানানো হয়নি। তবে তাতে আমার কিছু আসে যায় না। আমি এখনও বলছি রাহুলকে ঘিরে যাঁরা রয়েছেন, তাঁদের মাটিতে পা নেই। দলের এই ভরাডুবির জন্য একমাত্র তাঁরাই দায়ী।”

আরও পড়ুন

Advertisement