×

আনন্দবাজার পত্রিকা

Advertisement

১৪ এপ্রিল ২০২১ ই-পেপার

কিরণ বেদীর দিকে আঙুল কংগ্রেসের

নিজস্ব সংবাদদাতা
নয়াদিল্লি ২৪ ফেব্রুয়ারি ২০২১ ০৬:৪৪
ফাইল ছবি

ফাইল ছবি

মহারাষ্ট্র থেকে পশ্চিমবঙ্গে যেমন মোদী সরকারের নিযুক্ত রাজ্যপালরা রাজ্য সরকারের কাজে হস্তক্ষেপ করছেন, তেমনই পুদুচেরিতে উপরাজ্যপাল কিরণ বেদীকে দিয়ে নির্বাচিত সরকারের কাজে বাধা দেওয়া হয়েছে বলে কংগ্রেসের অভিযোগ।
পুদুচেরিতে কংগ্রেস সরকারের পতনের এক দিন পরে দলের নেতারা দাবি করছেন, আসন্ন বিধানসভা ভোটে কংগ্রেস এর ফলে মানুষের সহানুভূতি পাবে। কিন্তু বিধানসভায় আস্থাভোটে হেরে যাওয়ার ঠিক আগে কেন্দ্রীয় সরকার পুদুচেরির উপরাজ্যপালের পদ থেকে কিরণ বেদীকে সরিয়ে নেওয়ায়, নির্বাচনে বেদীর বিরুদ্ধে অভিযোগ তুলে কতখানি লাভ হবে, তা নিয়েও কংগ্রেস নেতৃত্বের মধ্যে প্রশ্ন রয়েছে।
আজ পুদুচেরির মুখ্যমন্ত্রীর পদ থেকে ভি নারায়ণস্বামীর ইস্তফা গৃহীত হয়। বিধানসভা ভোটের মাত্র দু’তিন মাস বাকি। এই কয়েক দিনের জন্য প্রধান বিরোধী দল এন আর কংগ্রেসকে সরকার গড়তে ডাকা হবে না বলেই রাজনৈতিক সূত্র মনে করছে। অন্যতম বিরোধী দল এডিএমকে নেতৃত্ব জানিয়ে দিয়েছে, বিরোধীদের সরকার গঠনের কোনও ইচ্ছা নেই। সে ক্ষেত্রে রাষ্ট্রপতি শাসনই জারি হতে পারে।
কংগ্রেস কিরণ বেদীর দিকে আঙুল তুললেও বিজেপি নেতৃত্বের যুক্তি, বেদী উপরাজ্যপাল হিসেবে পুদুচেরির সরকারের কাজে বাধা দেননি। তিনি দুর্নীতি রোখার কাজ করেছিলেন। বিধানসভা ভোটে কংগ্রেস যাতে তাঁকে দুষতে না পারে, সেই জন্যই আস্থাভোটের আগে তাঁকে সরিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে বিজেপি সূত্রের খবর। খুব শীঘ্রই এই অবসরপ্রাপ্ত আইপিএস-কে অন্য কোনও গুরুত্বপূর্ণ দায়িত্বে বসানো হতে পারে।

Advertisement
Advertisement