Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৫ সেপ্টেম্বর ২০২১ ই-পেপার

‘জন্মকুণ্ডলীতে দোষ’, বাড়িতে আটকে রেখে গৃহশিক্ষিকার সঙ্গে বিয়ে এক নাবালকের

সংবাদ সংস্থা
জালন্ধর ১৮ মার্চ ২০২১ ১৬:৫০
প্রতীকী ছবি।

প্রতীকী ছবি।

‘জন্মকুণ্ডলীতে দোষ’কাটাতে পুরোহিতের নির্দেশে গৃহশিক্ষিকা বিয়ে করলেন তাঁরই এক নাবালক ছাত্রকে। ঘটনাটি ঘটে বুধবার জালন্ধরের বসতি বাওয়া খেল এলাকায়।

জন্মকুণ্ডলীতে মাঙ্গলিক দোষ পাওয়ায় মহিলার পরিবার তাঁর বিয়ে নিয়ে উদ্বিগ্ন হয়ে ওঠে এবং পুরোহিতের কাছে এর বিহিত জানতে চাওয়ায় তিনি বলেন এক নাবালকের সঙ্গে প্রতীকী বিয়ে হলে এই দোষ কাটানো সম্ভব। এর ফলে মহিলা তাঁর ক্লাসের ১৩ বছরের এক নাবালককে বেছে নেন। তিনি ওই নাবালকের বাড়িতে জানান, পড়াশোনার জন্য শিশুটিকে তাঁর বাড়িতে এক সপ্তাহ থাকতে হবে।

ঘটনাটি প্রকাশ্যে আসে যখন ছেলেটি তার বাড়িতে ফেরে এবং সব কথা জানায়। ওই নাবালকের অভিভাবকরা বসতি বাওয়া খেল থানায় অভিযোগ দায়ের করেন।

নাবালকের বয়ান অনুযায়ী, তাকে দিয়ে অভিযুক্ত ও তাঁর পরিবার জবরদস্তি বৈবাহিক বিভিন্ন প্রথা পালন করায়। এর পর মহিলার হাতের চুড়ি ভেঙ্গে তাকে বিধবা বলে ঘোষণা করে। এমনকি,শোক সভার আয়োজনও করে।

অভিযোগ দায়ের হওয়ার পর ওই মহিলা থানায় যান এবং ব্যাপারটা ধামা চাপা দেওয়ার চেষ্টা করেন। ওই নাবালকের পরিবারকে অভিযোগ তুলে নেওয়ার জন্য চাপ দেওয়া হয় বলে অভিযোগ।

স্থানীয় স্টেশন হাউস অফিসার গগনদীপ সিংহ জানান, এর পর দুই পরিবারের বোঝাপড়ায় অভিযোগ তুলে নেওয়া হয়।

জলন্ধরের ডিএসপি গুরমিত সিংহ জানান এই ঘটনাটি নিয়ে তদন্ত চলছে, কারণ ছেলেটি নাবালক। তাকে ওই ভাবে বাড়িতে বন্ধ করে রাখাও বেআইনি। যদিও অভিযুক্ত ও তাঁর পরিবারের বিরুদ্ধে কোনও পদক্ষেপ করা হয়নি।

Advertisement

আরও পড়ুন

More from My Kolkata
Advertisement