দিনের বেলায় হাতে টিভি চ্যানেলের বুম। আর রাতে সেই বুমই বদলে যেত আগ্নেয়াস্ত্রে। কিংবা দিনে স্টুডিয়োয় টিভি ক্যামেরার সামনে নিপাট ভদ্রলোকের মতো ঝকঝকে উপস্থাপনা। আর রাতে তিনিই অস্ত্রধারী দুঃসাহসিক ডাকাত। কিন্তু শেষ রক্ষা হয়নি। পুলিশের জালে ধরা পড়েছেন বেলজিয়াম-ফ্রান্সের জনপ্রিয় টিভি চ্যানেলের পরিচিত মুখ স্টিফেন পাওয়েলস। গ্রেফতারের পরই ওই টিভি চ্যানেল বরখাস্ত করেছে পাওয়েলসকে।

কয়েক মাস আগে বেলজিয়ামের রাজধানী ব্রাসেলস ও শহরতলির বিভিন্ন এলাকায় চোর-ডাকাত-মাদক পাচারকারী-সহ দুষ্কৃতীদের ধরতে অভিযান শুরু করে পুলিশ। তাতে গ্রেফতার হয় কয়েকজন কুখ্যাত দুষ্কৃতী। ব্রাসেলস পুলিশ জানিয়েছে, সেই সূত্রেই তদন্তে উঠে আসে টিভি উপস্থাপক পাওয়েলসের নাম। এর পর ২৮ অগস্ট মঙ্গলবার ব্রাসেলসের দক্ষিণ শহরতলির ল্যাসনে এলাকা থেকে তাঁকে গ্রেফতার করা হয়।

সরকারী আইনজীবীর মুখপাত্র ওয়েঙ্কে রজেন জানিয়েছেন, তদন্তে নেমে পাওয়েলসের বিরুদ্ধে অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে ডাকাতিতে জড়িত থাকার প্রাথমিক প্রমাণ মেলে। গোয়েন্দারা জানতে পারেন, একটি ডাকাত দলের সক্রিয় সদস্য হিসাবে কাজ করতেন পাওয়েল। তার পরই তাঁকে গ্রেফতার করা হয়। বুধবার আদালতে তোলা হলে অবশ্য বিচারক তাঁরে শর্তাধীন জামিন মঞ্জুর করেন।

আরও পড়ুন: এই ছবি নিয়ে সোশ্যাল মিডিয়া তোলপাড়, শেষটা জানলে আপনি চমকে যাবেন!

বছর পঞ্চাশের পাওয়েলস বেলজিয়ামের অন্যতম জনপ্রিয় বেসরকারি টিভি চ্যানেল ‘আরটিএল টিভিআই’-এর উপস্থাপক ছিলেন। ফ্রান্সেও নানা সময়ে ফুটবল ম্যাচ এবং এই সংক্রান্ত একাধিক অনুষ্ঠানে ঘোষক বা উপস্থাপক হিসাবে কাজ করেছেন। ফলে ফ্রান্সেও তিনি জনপ্রিয় মুখ। এছাড়া ‘লাইফ ইজ ফুল অব আনএক্সপেক্টেড টার্নস’ নামে বেলজিয়ামের একটি টিভি শোতেও একই ভূমিকায় দেখা যায় তাঁকে। সেলিব্রিটি ও সাধারণ মানুষের জীবনের মোড় ঘোরানো ভাল-মন্দ ঘটনা তুলে ধরার সুবাদে বেলজিয়ামে এই শো-র টিআরপিও ঈর্ষণীয়।

আরও পড়ুন: পাখি বাঁচাতে বিড়াল পোষায় নিষেধাজ্ঞা! ক্ষোভে ফুঁসছে বাসিন্দারা

ঘটনার খবর সামনে আসতেই আরটিএল সংস্থা বিবৃতি দিয়ে পাওয়েলসকে চাকরি থেকে বরখাস্ত করেছে। কেন তাঁকে ছেঁটে ফেলা হল, সেই বিষয়টি পরে ব্যাখ্যা করা হবে বলেও জানানো হয়েছে সংস্থার ওই বিবৃতিতে।