• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

গাড়িতে ‘আমি ভগবান’ লিখতে না দেওয়ায় কোটি টাকা গুনাগার দিল সরকারি সংস্থা!

God number plate
এই রেজিস্ট্রেশন প্লেট নিয়েই মামলা। ছবি: টুইটার থেকে নেওয়া।

গাড়ির রেজিস্ট্রেশন প্লেটে ‘আই অ্যাম গড’ (আমিই ভগবান) লেখার অনুমতি দেয়নি মার্কিন মুলুকের একটি সরকারি সংস্থা। পরে সেই বিষয়টি গড়ায় আদালতে। কিন্তু আদালতের রায় যায় অভিযোগকারীর পক্ষেই। শেষ পর্যন্তওই সরকারি সংস্থাকেই দিতে হল এক কোটি টাকার বেশি খেসারত!

মামলাটি ছিল বেনি হার্ট নামে এক মার্কিন নাগরিক বনাম কেনটাকি ট্রান্সপোর্টেশন ক্যাবিনেটের। বেনির অভিযোগ, তাঁর গাড়ির রেজিস্ট্রেশন প্লেটে ইচ্ছে মতোবার্তা লিখতে দেওয়া হচ্ছে না। অথচ এর আগে সেই একই বার্তা লিখে তিনি গত এক দশক ধরে আমেরিকার ওহিও-তে ঘুরছেন, কোথাও কোনও সমস্যা হয়নি।

বেনি নিজেকে নাস্তিক বলে দাবি করেন, ভগবানে বিশ্বাস করেন না। তাই নিজের গাড়িতে লিখেছিলেন ‘আমিই ভগবান’। ২০১৬ সালে ওহিও থেকে চলে এসে কেনটাকিতে বসবাস শুরু করেন। তখন একই বার্তা যাতে তাঁর গাড়িতে রাখতে পারেন তার অনুমতি চান ট্রান্সপোর্টেশন ক্যাবিনেটের কাছে। কিন্তু সেই অনুমতি মেলেনি।

আরও পড়ুন: কেরলের পাহাড়ে দেখা মিলল ‘জটায়ু’-র’, সত্য জানা গেল ইন্টারনেট থেকে

মামলা আদালতে গড়ালে, শেষ পর্যন্ত রায় যায় বেনির পক্ষে। আদালতের তরফে বলা হয়, যেখানে ‘আই অ্যাম ফর গড’ বা ‘লাভ ইউ গড’ এর মতো বার্তা লেখার অনুমতি দেওয়া হয়, সেখানে ‘আই অ্যাম গড’ লেখার অনুমতি না দেওয়া ধর্মীয় নিরপেক্ষাতার পরিপন্থী। এটি বেনির অধিকার খর্ব করার সমান। তাই ট্রান্সপোর্টেশন ক্যাবিনেটকে নির্দেশ দেওয়া হয়, দেড় লাখ মার্কিন ডলার (ভারতীয় মুদ্রায় প্রায় এক কোটি ৭ লাখ ৩৪ হাজার টাকা) অ্যাটর্নি ফি এবংআরও প্রায় ৩৫ হাজার টাকা বেনির হাতে তুলে দিতে হবে।

আরও পড়ুন: পৌনে ছ’ লাখ কেজির বিমানকে রানওয়ে থেকে সরিয়ে দিচ্ছে সাইক্লোন ডেনিস

এই লড়াইয়ে বেনির পাশে দাঁড়িয়েছিল, ফ্রিডম ফ্রম রিলিজিয়ন ফাউন্ডেশন ও অ্যামেরিকান সিভিল লিবার্টিস ইউনিয়ন। তারাই বেনির হয়ে আইনের দ্বারস্থ হন ২০১৬ সালের নভেম্বরে। আদালতের এই রায়ে তিনি খুশি বলে জানিয়েছেন বেনি হার্ট।

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন