ভূত আছে না নেই তা নিয়ে যথেষ্ট বিতর্ক রয়েছে। তবে ভয় পেতে বোধহয় আমরা একটু ভালই বাসি। তাই ভয়ে দু’হাত দিয়ে চোখ ঢেকে আঙুলের ফাঁক দিয়ে হরর ফিল্মের সবচেয়ে ভয়ানক দৃশ্যটাও আমরা মিস করতে চাই না।

তবে হরর ফিল্মে ভূত দেখা আর বাস্তবে কোনও ‘ভৌতিক’ ঘটনা প্রত্যক্ষ করার মধ্যে বিস্তর ফারাক আছে। যে ফারাকটা হাড়ে হাড়ে টের পেয়েছেন ব্রিটিশ মডেল এবং টেলিভিশন সঞ্চালক কেটি প্রাইস।

সম্প্রতি নিজের ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে কিছু ছবি পোস্ট করে নিজের ‘ভৌতিক’ অভিজ্ঞতা শেয়ার করেছেন কেটি। কেটির করা এই পোস্টগুলি রীতিমতো ভাইরাল হয়ে গিয়েছে সোশ্যাল মিডিয়ায়। তাঁর পোস্ট করা ছবিগুলির নীচে ইতিমধ্যেই হাজার খানেক কমেন্ট এবং ২০ হাজারেরও বেশি লাইক জমা হয়েছে। সংখ্যা এখনও বেড়ে চলেছে।

 

Another one of what looks like a little boy ! All these in my house

A post shared by Katie Price (@officialkatieprice) on

কেটির মোবাইল ক্যামেরায় তোলা ছবিতে দেখা যাচ্ছে, ঘরের দেওয়াল ঘেঁষে দাঁড়িয়ে আছে এক ছায়ামূর্তি। শরীরের গড়ন বা মুখের আদল অনেকটা কোনও শিশুর মতো।

আরও পড়ুন: ‘ভিনগ্রহী যান’ দেখা গিয়েছে! দাবি পেন্টাগনের প্রাক্তন কর্তার

৩৯ বছর বয়সী এই মডেলের দাবি, এই ছবিগুলি তোলার সময় তাঁর বাড়িতে উপস্থিত ছিলেন ‘ঘোস্ট হান্টার’ লি রবার্টসও। ইংল্যান্ডের অনেক জায়গারই ‘ভুতুড়ে’ বলে বদনাম রয়েছে। এ বার কি কেটি প্রাইসের সাসেক্সের বাড়িও যুক্ত হবে সেই তালিকায়!

যাঁরা ভূতে বিশ্বাস করেন না, তাঁরা অনেকেই এই ছবিগুলিকে ‘অ্যাপ’-এর কারসাজি বলে উড়িয়ে দিতে পারেন। তবে ছবিগুলি দেখলে এগুলির মধ্যে যে একটু গা ছমছমে ব্যাপার আছে তা মেনে নিয়েছেন অনেকেই।