এক মঞ্চে নরেন্দ্র মোদী ও ডোনাল্ড ট্রাম্প। ‘হাউডি-মোদী’ নিয়ে মুখিয়ে রয়েছে হিউস্টন। রবিবার ওই হাইভোল্টেজ সভায় যোগ দেওয়ার পর দিন অর্থাৎ সোমবার নিউ ইয়র্কে রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভার অধিবেশনের সময়ে পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে বৈঠক করবেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। মঙ্গলবার মোদীর সঙ্গে ফের তাঁর বৈঠকের কথা রয়েছে। এ খবর জানা গিয়েছে মার্কিন প্রশাসনের একটি সূত্রে।

ওই সূত্রে জানা গিয়েছে, রবিবার রাতে নিউইয়র্কে পৌঁছবেন ট্রাম্প। অস্ট্রেলিয়ার প্রধানমন্ত্রী স্কট মরিসনের সঙ্গে সাক্ষাতের জন্য সে দিনই ওহায়ো যাবেন তিনি। সোমবার রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভায় ধর্মীয় স্বাধীনতা রক্ষার বিষয়ে বক্তৃতা দেবেন ট্রাম্প।

জানা গিয়েছে, সোমবারই পাক প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের সঙ্গে সাক্ষাত্ করবেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট। এ ছাড়াও, পোল্যান্ডের প্রেসিডেন্ট, নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী, সিঙ্গাপুরের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গেও দেখা করবেন ট্রাম্প।

আরও পড়ুন: যাদবপুর নিয়ে রাজ্যপালের সঙ্গে তীব্র টানাপড়েন তৃণমূলের

মঙ্গলবার রাষ্ট্রপুঞ্জের সাধারণ সভায় বক্তৃতা দেবেন ট্রাম্প। তার পর একাধিক দ্বিপাক্ষিক বৈঠক করবেন তিনি। ওই দিনই নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গেও বৈঠক রয়েছে তাঁর। তাতে প্রতিরক্ষা, বাণিজ্য, শক্তি চুক্তি-সহ নানা বিষয় আলোচনায় উঠে আসতে পারে বলে মনে করা হচ্ছে।

আগামী ২৭ সেপ্টেম্বর নিউইয়র্কে রাষ্ট্রপুঞ্জের সদর দফতরে অনুষ্ঠিত হতে চলেছে ৭৪তম সাধারণ সভা। তাতে ফের মুখোমুখি হতে চলেছে ভারত এবং পাকিস্তান। সংবিধানের ৩৭০ অনুচ্ছেদ বিলোপের পরবর্তী পর্যায়ে রাষ্ট্রপুঞ্জের ওই সভা ফের কাশ্মীর ইস্যুতে তপ্ত হয়ে উঠতে পারে বলেই মনে করছেন কূটনীতিবিদরা। এমন পরিস্থিতিতে, তার আগেই দু’দেশের দুই প্রধানের সঙ্গেই মার্কিন প্রেসিডেন্টের সাক্ষাৎ ইঙ্গিতবাহী বলে মনে করা হচ্ছে।

আরও পড়ুন: শিল্পমহলের প্রত্যাশা ছাপিয়ে করে রেহাই দিল মোদী সরকার