• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

সিয়াটলের রাস্তায় গুলি, নিহত দুই

Injury
হাসপাতালে নিয়ে যাওয়া হচ্ছে এক আহতকে। সিয়াটলে। এপি

ফের বন্দুকবাজ হানা আমেরিকায়। সিয়াটলের রাস্তায় দু’জনকে খুন করল আততায়ী। তার গুলিতে জখম আরও দু’জন। শেষমেশ অবশ্য পুলিশের জালে ধরা পড়েছে সে। তবে তার পরিচয় এখনও জানা যায়নি। কেন সে এই কাজ করল, তা তদন্ত করে দেখা হচ্ছে। 

সিয়াটল পুলিশের ডেপুটি চিফ মার্ক গার্থ গ্রিন জানান, বুধবার বিকেল ৪টে ৫ নাগাদ লেক সিটির বাসিন্দা ওই আততায়ী একটি হ্যান্ডগান নিয়ে রাস্তায় বেরোয়। এক মহিলা গাড়ি চালিয়ে যাচ্ছিলেন। সোজা তাঁর দিকে এগোয় সে। মহিলাকে তাক করে গুলি চালায়। পুলিশের অনুমান, হয়তো গাড়ি ছিনতাই করার উদ্দেশ্য ছিল আততায়ীর। গুরুতর জখম হন ওই মহিলা। কিন্তু শেষমেশ গাড়িতে না উঠে, সিদ্ধান্ত বদলে রাস্তা দিয়ে হাঁটতে থাকে সে। এর পর একটি বাস লক্ষ্য করে গুলি চালায়। বাসচালকের গুলি লাগে। আহত অবস্থাতেই বাস ঘুরিয়ে যাত্রীদের নিয়ে পালান তিনি। 

এর পরে একটি লাল গাড়ি ছিনতাই করে বন্দুকবাজ। তার আগে ৫০ বছর বয়সি গাড়ি চালককে গুলি চালিয়ে খুন করে। ইতিমধ্যে পুলিশ চলে আসে। বন্দুকবাজকে নিরস্ত করার চেষ্টা করে তারা। কিন্তু প্রচণ্ড গতিতে গাড়ি চালিয়ে পালায় সে। পিছনে ধাওয়া করে পুলিশ। এ সময়ে অন্য একটি গাড়িকে ধাক্কা মারে আততায়ী। গাড়িটি চালাচ্ছিলেন ৭০ বছরের এক বৃদ্ধ। দুর্ঘটনায় মৃত্যু হয় তাঁর। জখম হয় আততায়ীও। তার মধ্যেই সে পালানোর চেষ্টা করে বলে জানা গিয়েছে। কিন্তু ব্যর্থ হয়। পুলিশ তাকে গ্রেফতার করে হার্বারভিউ মেডিক্যাল সেন্টারে নিয়ে যায়। তবে তার জখম তেমন গুরুতর নয় বলেই জানিয়েছেন চিকিৎসকেরা। কড়া পাহারায় ঘিরে রাখা হয়েছে মেডিক্যাল সেন্টারটি।

পুলিশ কর্তা গ্রিন বলেন, ‘‘নিহতদের পরিবারের জন্য শোকার্ত আমরা। যাঁরা জখম হয়েছেন, গোটা এলাকার মানুষ বিষয়টিতে সন্ত্রস্ত। ওই লোকটি যা করেছে, তা মেনে নেওয়া যায় না।’’ জখম কারও প্রাণহানির আশঙ্কা নেই বলে জানিয়েছে প্রশাসন। তবে বাসচালকের তৎপরতায় বড়সড় ঘটনা এড়ানো গিয়েছে। কিং কাউন্টির এগজিকিউটিভ ডাউ কনস্টানটাইন বলেন, ‘‘ওই পরিস্থিতিতে উপস্থিত-বুদ্ধির পরিচয় দিয়েছেন বাসচালক। হিরোর মতো যাত্রীদের বাঁচিয়েছেন।’’ গ্রিনও বলেন, ‘‘দারুন সাহসী উনি। যে কাজটা করেছেন, খুব সহজ ছিল না। বাসের যাত্রীদের নিরাপদ স্থানে নামানোর পরে নিজের চিকিৎসার ব্যবস্থা করেন। সত্যিই হিরো!’’ 

সবাই যা পড়ছেন

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন