মসজিদে গুলিবৃষ্টি শুরু করার আগে ঘাতকদের মধ্যে ২৮ বছরের অস্ট্রেলীয় তরুণ ব্রেন্টন ট্যারান্ট বলেছিল, ‘পিউডিপাই’-এ সাবস্ক্রাইব করতে ভুলো না তোমরা। ফেসবুকে হত্যার ১৭ মিনিটের ভিডিয়ো ‘লাইভস্ট্রিম’ করেছে সে। 

তবে বিপদে পড়ে গিয়েছেন ফিলিক্স শেলবার্গ। অর্থাৎ ‘পিউডিপাই’ নামে যিনি ইউটিউবে পরিচিত। তিনি নিয়মিত ভিডিয়ো আপলোড করে থাকেন, যার মধ্যে রয়েছে কমেডি  সংক্রান্ত ভিডিয়োও।

সুইডেনের নাগরিক ফিলিক্স ‘ইউটিবার’ হিসেবে সব চেয়ে জনপ্রিয়। তার ফলোয়ার ৮ কোটি ৭০ লক্ষ। কিন্তু ঘাতক ব্রেন্টন তাঁর নাম নেওয়ায় সোশ্যাল মিডিয়ায় প্রথমে এক প্রস্ত সমালোচনা শুরু হয় তাঁকে নিয়েই।

ফিলিক্স নিজেই এর পরে টুইটারে লেখেন, ‘‘ক্রাইস্টচার্চের ভয়ঙ্কর খবরটা এইমাত্র শুনলাম। ওই লোকটি আমার নাম করেছে শুনে অসম্ভব অস্বস্তি হচ্ছে। এই ঘটনায় যাঁরা আক্রান্ত, তাঁদের প্রত্যেকের প্রতি আমার সমবেদনা।’’

ইন্টারনেটে এর পরে অবশ্য বহু মানুষ ফিলিক্সের পাশে দাঁড়িয়েছেন। বোঝানোর চেষ্টা করেছেন, ঘাতক নাম করলেও ‘পিউডিপাই’-এর সঙ্গে তার কোনও সম্পর্কই নেই।

 দিল্লি দখলের লড়াই, লোকসভা নির্বাচন ২০১৯