• মেহেদি হেদায়েতুল্লা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

জাহাজে ‘বিশ্রামের’ নির্দেশ বিনয়কে

Binay
জাহাজের কেবিন ক্রুদের সঙ্গে বিনয় সরকার।—ছবি পিটিআই।

Advertisement

আপাতত কাজ ছেড়ে ‘বিশ্রাম’ নেওয়ার নির্দেশ পেলেন বিনয় সরকার। জাপান উপকূলে করোনা-আতঙ্কে আটকে থাকা জাহাজের কেবিন ক্রু, উত্তর দিনাজপুরের চাকুলিয়ার ওই যুবক মঙ্গলবার ফোনে এমনই জানিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘‘মানসিক ভাবে ভেঙে পড়ায় জাহাজ সংস্থা থেকে আমাকে বিশ্রাম নিতে বলা হয়েছে।’’

বিনয়ের দাবি, মুম্বই থেকে ওই সংস্থার কর্তারা ফোন করে জাহাজে বন্দি ভারতীয় কর্মীদের দেশে ফেরানোর বিষয়ে আশ্বাস দিয়েছেন। তিনি বলেন, ‘‘সব কিছু ঠিকঠাক থাকলে ২০ ফেব্রুয়ারি দেশে ফিরতে পারি। তবে এখনও আতঙ্ক কাটছে না। জাহাজ টোকিয়োর কাছাকাছি একটি  বন্দরে নোঙর করেছে। তবে এ দিন কেউ নতুন করে ভাইরাসে  আক্রান্ত হয়েছেন কিনা জানি না।’’

ওই জাহাজে করোনাভাইরাস হানা দিয়েছে বলে দাবি করে নিরাপদে তাঁদের দেশে ফেরানোর আর্জি জানিয়ে একটি ভিডিয়ো সোশ্যাল মিডিয়ায় দিয়েছিলেন বিনয়। তা দ্রুত অন্তর্জালে ‘ভাইরাল’ হয়। 

মঙ্গলবার অবশ্য নতুন করে সোশ্যাল মিডিয়ায় কোনও ভিডিয়ো দেননি বিনয়। তবে ফোনে বলেছেন, ‘‘কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকার আমাদের দেশে ফেরাতে তৎপর বলে শুনছি।  তবে যতক্ষণ না ফিরছি ততক্ষণ স্বস্তি নেই।’’

এ দিকে এ নিয়ে রাজনৈতিক তরজা শুরু হয়েছে বিনয়ের জেলায়। রায়গঞ্জের সাংসদ  তথা কেন্দ্রীয় মন্ত্রী দেবশ্রী চৌধুরী বুধবার এ নিয়ে বলেন, ‘‘বিনয়ের পরিবার মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় ও রাজ্যের মন্ত্রী রাজীব বন্দ্যোপাধ্যায়ের সঙ্গে যোগাযোগ করছেন। রাজ্য সরকার নাকি চেষ্টা করছে। আমার আর কী বলার আছে!’’ পরে অবশ্য তিনি বলেন, ‘‘বিনয়ের খবর পেয়েই বিদেশ মন্ত্রককে জানিয়েছি। যা ব্যবস্থা নেওয়ার মন্ত্রক নিচ্ছে।’’

এ বিষয়ে উত্তর দিনাজপুর  জেলা তৃণমূল সভাপতি কানাইয়ালাল আগরওয়াল বলেন, ‘‘বিনয়ের আবেদনে সাড়া দিয়ে মুখ্যমন্ত্রী বিনয়-সহ ছয় বাঙালিকে ফেরাতে উদ্যোগী হয়েছেন। আমরা বিনয়ের পরিবারের পাশে রয়েছি।’’

রাজনৈতিক এই টানাপড়েন নিয়ে বিনয়ের পরিবার অবশ্য কোনও মন্তব্য করতে চাননি। তাঁদের দাবি, বিনয়কে  দেশে ফেরাতে কেন্দ্রীয় ও রাজ্য সরকার  দ্রুত পদক্ষেপ করুক।

সংবাদ সংস্থার খবর, জাহাজের ১৩৮ জন ভারতীয়ের সঙ্গে সমানে যোগাযোগ রাখা হচ্ছে বলে মঙ্গলবার জানাল টোকিয়োর ভারতীয় দূতাবাস। সোমবার নতুন করে আরও ৬০জন যাত্রীর শরীরে সংক্রমণের খবর মিলেছে বলে প্রশাসন সূত্রে খবর। ফলে আক্রান্তের মোট সংখ্যা বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৩০। তবে ওই ১৩৮ জন ভারতীয়দের এখনও পরীক্ষা হয়নি বলেই দূতাবাস সূত্রের খবর।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন