ভারত ছাড়ার আগে কেন্দ্রীয় অর্থমন্ত্রী অরুণ জেটলির সঙ্গে তিনি দেখা করেছিলেন। ‘সমস্যাগুলি মিটিয়ে ফেলা’র জন্য তিনি বার বার অনুরোধ জানিয়েছিলেন জেটলিকে।

বুধবার লন্ডনে এমনটাই দাবি করলেন বিশিষ্ট শিল্পপতি বিজয় মাল্য

প্রায় ৯ হাজার কোটি টাকার ব্যাঙ্ক প্রতারণার অভিযোগ রয়েছে মাল্যের বিরুদ্ধে। তদন্ত ও বিচারের স্বার্থে মাল্যকে ভারতের হাতে তুলে দেওয়ার জন্য ব্রিটেনের কাছে আর্জি জানিয়েছে সিবিআই। ভারতের জেলগুলিতে কোনও মানুষের থাকা সম্ভব নয়, এই যুক্তিতে আদালতে সিবিআইয়ের আর্জিকে চ্যালেঞ্জ জানিয়েছেন মাল্য।

তারই শুনানির পর এ দিন লন্ডনের ওয়েস্টমিনিস্টার ম্যাজিস্ট্রেটের আদালতের বাইরে মাল্য সাংবাদিকদের বলেন, ‘‘আমি ভারত ছাড়ার আগে জেটলির সঙ্গে দেখা করেছিলাম। তাকে যাবতীয় সমস্যা দ্রুত মিটিয়ে নিতে বার বার অনুরোধ করেছিলাম। চিঠিপত্রও দিয়েছিলাম। কিন্তু বাগড়াটা দিয়েছিল ব্যাঙ্কগুলিই।’’

আরও পড়ুন- ‘দেশ ছাড়ার আগে মাল্য বিজেপি নেতাদের সঙ্গে দেখা করেছিলেন’​

আরও পড়ুন- মাল্যের হাজিরার আগে তির রাহুলের​

তবে ওই সময় জেটলির সঙ্গে বৈঠকে তাঁর কী কী কথা হয়েছিল, তা সবিস্তার জানাতে চাননি মাল্য।

গত মাসে তাঁর ব্রিটেন সফরের সময় কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গাঁধী লন্ডনে অভিযোগ করেন, ‘‘বিজয় মাল্যের মতো কয়েক জন শিল্পপতি সম্পর্কে মোদী সরকার নরম মনোভাব নিয়ে চলছে। ভারত ছাড়ার আগে উনি (মাল্য) যে কয়েক জন বিজেপি নেতার সঙ্গে দেখা করেছিলেন, তাঁর পর্যাপ্ত প্রমাণ রয়েছে। তবে আমি কারও নাম করতে চাই না।’’