Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

২৮ মে ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

অশ্বিনকে ফলো করে গিয়েছি, বললেন অস্ট্রেলিয়ার আর এক সফল স্পিনার

একরাশ হতাশা। সম্প্রতি এমন অভিজ্ঞতার সম্মুখিন হয়নি ভারতীয় ক্রিকেট দল। তাঁর অধিনায়কত্বে তো নয়ই। সাফল্য যেন সঙ্গে সঙ্গেই চলছিল তাদের। অধিনায়ক হ

সংবাদ সংস্থা
২৫ ফেব্রুয়ারি ২০১৭ ২০:০৩
Save
Something isn't right! Please refresh.
ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহালি। ছবি: এএফপি।

ভারত অধিনায়ক বিরাট কোহালি। ছবি: এএফপি।

Popup Close

একরাশ হতাশা। সম্প্রতি এমন অভিজ্ঞতার সম্মুখিন হয়নি ভারতীয় ক্রিকেট দল। তাঁর অধিনায়কত্বে তো নয়ই। সাফল্য যেন সঙ্গে সঙ্গেই চলছিল তাদের। অধিনায়ক হিসেবে বিরাট কোহালির ঝুলিতে পর পর জমা হচ্ছিল সাফল্য। হঠাৎই এই ছন্দপতন। টানা অপরাজিত থাকার ধারাবাহিক সাফল্যে জোড় ধাক্কা দিয়ে গেল অস্ট্রেলিয়া। চার ম্যাচের সিরিজের প্রথম টেস্ট শেষ করে দিল আড়াই দিনেই। অস্ট্রেলিয়ার স্পিন অ্যাটাকের সামনে পড়ে উড়ে গেল ভারতীয় ব্যাটিং। ব্যাট হাতে ব্যর্থ স্বয়ং বিরাট কোহালিও। ম্যাচ শেষে সেই ব্যাটিংকেই একহাত নিলেন বিরাট। ‘‘আমরা পুরোপুরি ম্যাচ থেকে হারিয়ে গিয়েছিলাম। এটা মেনে নিতে হবে ওরা আমাদের ম্যাচে দাঁড়াতে দেয়নি। গত দু’বছরে এটাই আমাদের সব থেকে খারাপ ব্যাটিং। এই তিনদিনে আমরা একবার ভাল ক্রিকেট খেলতে পারিনি। আমরা নিজেদের সেরাটা দিতে পারিনি। আমাদের দেখতে হবে আরা কী কী ভুল করলাম।’’

আরও খবর: ও’কিফের ভারত বধের নেপথ্যে এক প্রাক্তন ভারতীয় স্পিনার

ভারত অধিনায়ক মেনে নিলেন, অস্ট্রেলিয়া ভারতের কন্ডিশনকে দারুণভাবে ব্যবহার করেছে। বলেন, ‘‘আমাদের থেকেও এই পিচকে অনেক ভাল মতো ব্যবহার করেছে ওরা। পুরো ম্যাচেই ওরা আমাদের চাপে রেখেছিল। ওরাই এই জয়ের দাবীদার। ওদের কৃতিত্ব ওরা আমাদের থেকে ভাল খেলেছে। দুটো চূড়ান্ত খারাপ ইনিংস থেকে একটা ভাল দলের বিরুদ্ধে ঘুরে দাঁড়ানো কঠিন। কিন্তু আমাদের কোনও অজুহাত নেই। কখনও কখনও মাথা নত করে প্রতিপক্ষকে বলতে হয় তোমরা ভাল খেলেছ।’’ যদিও ভারত অধিনায়কের বিশ্বাস তাঁরা ঘুরে দাঁড়াবেনই। অন্যদিকে, স্টিভ ও’কিফকে নিয়ে আপ্লুত অস্ট্রেলিয়া অধিনায়ক স্টিভেন স্মিথ। তিনি বলেন, ‘‘ছেলেরা যে ভাবে খেলেছে তাতে আমি গর্বিত। ও’কিফ দারুণ বল করেছে। আমরা বেশ কিছু ভাল স্পিনার পেয়েছি দলে। মনে হচ্ছিল ও’কিফ সব বলেই উইকেট নেবে। বাকি সিরিজে ওই হবে সেরা প্লেয়ার।’’

Advertisement



ভারত-অস্ট্রেলিয়া ম্যাচের একটি দৃশ্য। ছবি: এএফপি।

স্মিথ যদিও টস জেতাকেই এগিয়ে রাখছেন। সঙ্গে দলের সকলের হার্ড ওয়ার্ককেও। এ ছাড়া পরিকল্পনা অনুযায়ী খেলতে পেরেছে দল। ৪৫০২ দিন পর ভারতে টেস্ট জিতল অস্ট্রেলিয়া। দ্বিতীয় ইনিংসে সেঞ্চুরি এসেছে তাঁর ব্যাট থেকে। যেটাকে ম্যাচের উপযোগী ইনিংস বলছেন তিনি। সঙ্গে ভাগ্যের কথাও বলছেন তিনি। বলেন, ‘‘এরকম উইকেটে ভাগ্যকেও সঙ্গে লাগে। সঙ্গে লাগে আত্মবিশ্বাস। বোর্ডে এরকম একটা রান রাখতে হয় যাতে বল হাতেও ছেলেরা লড়াই করতে পারে।’’ দুরন্ত বল করে দেশকে জয় এনে দেওয়া ও’কিফ বলেন, ‘‘প্রথম ইনিংস অতটা ভাল ছিল না। স্পিনের থেকে বল বেশি ছিটকে যাচ্ছিল। কিন্তু দ্রুত পরিবর্তন করতে হল আমাকে। কৃতিত্ব অধিনায়ক ও দলের ফিল্ডারদের। ১-০তে এগিয়ে থেকে পরের ম্যাচে নামাটা আমাদের জন্য ভাল। পুরো সিরিজ পরে রয়েছে। আমি উপভোগ করেছি এই ম্যাচ। বেঙ্গালুরুতে দ্বিতীয় টেস্টের দিকে তাকিয়ে রয়েছি।’’

নাথান লিও অবশ্য অন্য কথাই শুনিয়েছেন। ভারতের স্পিনের রাজা, টেস্টের সেরা স্পিনার রবিচন্দ্রন অশ্বিনকে নাকি ভাল মতো লক্ষ্য করেছেন তাঁরা। তিনি বলেন, ‘‘আমাদের পরিকল্পনা ছিল লড়াই করে যাওয়া ওদের প্রতিযোগিতার সামনে ফেলা। আমরা অশ্বিনের বল ভাল মতো দেখেছি। আর ওর মতো বল করার চেষ্টা করেছি। আর এই পিচে আমরা ভাল বল করেছি।’’ কোচ ড্যারেন লেম্যান অবশ্য শ্রীলঙ্কা সিরিজের অভিজ্ঞতাকেই এগিয়ে রাখছেন। ভারত কোচ অনিল কুম্বলে অবশ্য আগের দিনই বলেছিলেন, এটা একটা খারাপ দিন। কিন্তু সেই খারাপ দিন থেকে বেরিয়ে ভাল দিনের মুখ দেখতে পারল না ভারত।



Something isn't right! Please refresh.

Advertisement