Follow us on

Download the latest Anandabazar app

© 2021 ABP Pvt. Ltd.

Advertisement

১০ অগস্ট ২০২২ ই-পেপার

URL Copied
Something isn't right! Please refresh.

ডাক্তারির আসন নিয়ে মদনের আশ্বাসে বিস্ময়

এ রাজ্যে বিভিন্ন মেডিক্যাল কলেজের এক হাজারেরও বেশি আসনের উপরে মেডিক্যাল কাউন্সিল অব ইন্ডিয়া বা এমসিআইয়ের খাঁড়া ঝুলছে। ওই সব আসন কী ভাবে রক্ষ

নিজস্ব সংবাদদাতা
কলকাতা ১৪ জুন ২০১৪ ০৩:৫৫
Save
Something isn't right! Please refresh.
Popup Close

এ রাজ্যে বিভিন্ন মেডিক্যাল কলেজের এক হাজারেরও বেশি আসনের উপরে মেডিক্যাল কাউন্সিল অব ইন্ডিয়া বা এমসিআইয়ের খাঁড়া ঝুলছে। ওই সব আসন কী ভাবে রক্ষা করা যায়, স্বাস্থ্য দফতরের শীর্ষ কর্তারাও ভেবে কূল পাচ্ছেন না। এমনই সঙ্কটকালে পরিবহণমন্ত্রী মদন মিত্রের অভয়, আসন কমছে মাত্র ৩০০টি এবং সেগুলো ফিরে আসবে অচিরেই। মুশকিল আসানের ব্যাপারে মন্ত্রীর এই আশ্বাসে স্বাস্থ্যকর্তারাও বিস্মিত।

স্বাস্থ্যকর্তাদের বক্তব্য, কখন আসন ছাঁটাইয়ের মোক্ষম খাঁড়া নেমে আসে, তা নিয়ে তাঁরা এখন প্রতিটি দিন উদ্বেগের মধ্যে কাটাচ্ছেন। দিল্লিতে এমসিআইয়ের সঙ্গে নিরন্তর যোগাযোগ রাখা হচ্ছে। যেখানে তাঁরাই এই বিষয়ে নিশ্চিত ভাবে কিছু জানেন না, সেখানে পরিবহণমন্ত্রী কী ভাবে এমন মন্তব্য করলেন, তার ব্যাখ্যা নেই তাঁদের কাছেও।

তবে পরিবহণমন্ত্রীর দাবি, তিনি এসএসকেএম এবং সাগর দত্ত মেডিক্যাল কলেজের রোগী কল্যাণ সমিতির চেয়ারম্যান। মেডিক্যালের আসনের ব্যাপারে তাই তাঁর অনেক কিছুই জানা আছে। তিনি বলেন, “পরিকাঠামো বাড়িয়ে সব আসন ফেরত নিতে হবে।” শুক্রবার বেসরকারি ইঞ্জিনিয়ারিং, মেডিক্যাল ও ম্যানেজমেন্ট কলেজ কর্তৃপক্ষের সংগঠন আয়োজিত প্রি-কাউন্সেলিংয়ের উদ্বোধনে এই দাবি করেন তিনি।

Advertisement

মূলত শিক্ষক-চিকিৎসকের অভাব এবং পরিকাঠামোর ঘাটতির জন্যই এ রাজে মেডিক্যালে হাজারেরও বেশি আসন বাতিলের সুপারিশ করেছে এমসিআই। মদনবাবু সেই পরিস্থিতির উন্নতি করেই আসন ফেরাতে চান। কিন্তু পরিকাঠামো বাড়ানোর বিষয়টি সময়সাপেক্ষ। যত দিন তার ব্যবস্থা না-হচ্ছে, তত দিন ওই সব আসন বাতিল করার কথা বলেছে এমসিআই। সেটা তিনি আটকাবেন কী ভাবে? স্বাস্থ্য দফতরের পেশ করা ১০৫০ আসনের হিসেব বদলে দিয়ে ৩০০ আসনের কথাই বা তিনি বলছেন কীসের ভিত্তিতে?

এর কোনও জবাব দিতে পারেননি মন্ত্রী। মদনবাবুর একটাই কথা, “মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় আসন বাড়িয়েছেন। এখন তা কমানোর চেষ্টা চলছে। এটা যে-ভাবেই হোক রুখতে হবে।”

রাজ্যের স্বাস্থ্য দফতরের এক শীর্ষ কর্তা বলেন, “জয়েন্টে মেডিক্যালে উত্তীর্ণ হয়েও বহু পরীক্ষার্থীর ভবিষ্যৎ এই মুহূর্তে অনিশ্চিত। খুবই বিভ্রান্তির মধ্যে রয়েছেন তাঁরা। এই পরিস্থিতিতে পুরোপুরি ওয়াকিবহাল না-হয়ে কোনও মন্তব্য করা ঠিক নয়।”

মদনবাবু এ দিনের অনুষ্ঠানে সাংবাদিকদেরও কটাক্ষ করেন। বলেন, “মেডিক্যালে ক’টা আসন কমে গেল, তা-ই নিয়ে সংবাদমাধ্যমের মাথাব্যথা। আরে, ক’টা আসন বেড়ে ক’টা কমলো, সেটা লিখুন!” তাঁর দাবি, এই সরকারের আমলে ৮০০ আসন বেড়ে ৩০০টি কমেছে। রাজ্যে সরকারি-বেসরকারি যৌথ উদ্যোগে বেশ কয়েকটি মেডিক্যাল কলেজ গড়ে তোলা হচ্ছে। ফলে আসন আরও বাড়বে বলেও আশ্বাস দেন তিনি।

(সবচেয়ে আগে সব খবর, ঠিক খবর, প্রতি মুহূর্তে। ফলো করুন আমাদের Google News, Twitter এবং Instagram পেজ)


Something isn't right! Please refresh.

Advertisement