২০০৭-এ হায়দরাবাদে জোড়া বিস্ফোরণকাণ্ডে দোষী দুই ইন্ডিয়ান মুজাহিদিন জঙ্গিকে ফাঁসির সাজা শোনাল আদালত। যাবজ্জীবন কারাদণ্ড হয়েছে ওই সংগঠনের আর এক জঙ্গির। সোমবার জাতীয় তদন্তকারী সংস্থার বিশেষ আদালতের বিচারপতি ওই তিন অপরাধীর সাজা ঘোষণা করেন।

পুলিশ জানিয়েছে, ফাঁসির সাজাপ্রাপ্তদের নাম অনীক সইদ এব‌ং ইসমাইল চৌধুরি। অপর জঙ্গি তারিক অঞ্জুমের আজীবন কারাবাস হয়েছে। প্রমাণের অভাবে ছাড়া পেয়েছে এই মামলায় আরও দুই অভিযুক্ত ফারুক সরফুদ্দিন তরকশ এবং মহম্মদ সাদিক ইসরার শাইক। তবে তরকশ বা শাইকের বিরুদ্ধে অন্যান্য মামলা ঝুলে থাকায় এখনই জেল থেকে ছাড়া পাচ্ছে না তারা।  

২০০৭-এর ২৫ অগস্ট হায়দরাবাদের একটি রেস্তরাঁ ও ওপেন থিয়েটারে জোড়া বিস্ফোরণ ঘটানো হয়। ওই বিস্ফোরণে নিহত হয়েছিলেন ৪৪ জন। জখম ৬৮।

আরও পড়ুন
এই সরকারের পতন অবশ্যম্ভাবী, মোদীকে তোপ দেগে বললেন মনমোহন

৪ সেপ্টেম্বর এই মামলায় দোষী সাব্যস্ত হয় অনীক সইদ এবং মহম্মদ আকবর ইসমাইল চৌধুরি। এ দিন সকালে বিস্ফোরণকাণ্ডে জড়িত দু’জনকে আশ্রয় দেওয়ার অপরাধে দোষী সাব্যস্ত হয় তারিক। পুলিশ জানিয়েছে, ৩৬ বছরের অনীক পুণেতে একটি কম্পিউটারের দোকান ছিল। অন্য দিকে, ওই শহরেই মোবাইল সারাইয়ের কাজ করত ৩৫ বছরের ইসমাইল। তবে এই মামলায় আরও তিন অভিযুক্ত রিয়াজ ভটকল, ইকবাল ভটকল এবং আমির রেজ়া খানকে এখনও পর্যন্ত গ্রেফতারই করতে পারেনি পুলিশ।

আরও পড়ুন
বন‌্‌ধে আটকে পড়া অ্যাম্বুল্যান্সে শিশুর মৃত্যু বিহারে! মন্ত্রীর দাবি ওড়ালেন জেলাশাসক

এ দিনের রায়কে চ্যালেঞ্জ জানিয়ে হাইকোর্টের দ্বারস্থ হবে দোষীরা। সংবাদমাধ্যমের কাছে অনীক সইদের আইনজীবী জি গুরুমূর্তির মন্তব্য, “এটা খুবই দুর্বল রায়। এই রায়ের বিরুদ্ধে হাইকোর্টে যাব।”

 

(দেশজোড়া ঘটনার বাছাই করা সেরা বাংলা খবর পেতে পড়ুন আমাদের দেশ বিভাগ।)