উনুনে সেঁকা ভুট্টা কমবেশি সকলেরই প্রিয়। কিন্তু এই ভাবে ভুট্টা সেঁকার সময় উনুনের ধোঁয়া থেকে যে বায়ুদূষণ হয় তাও নেহাত কম উদ্বেগের নয়। উনুনের ধোঁয়া থেকে মায়েদের ফুসফুস বাঁচাতে প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর প্রচারও আমরা দেখেছি বিগত বছরগুলিতে। ভুট্টা সেঁকেতে উনুনের বদলে সোলার প্যানেল কী ভাবে কাজে লাগতে পারে তা দেখালেন বেঙ্গালুরুর এক মহিলা।

৭৫ বছরের বৃদ্ধা সেলভাম্মা গত ২০ বছর ধরে বেঙ্গালুরুর বিধান সৌধের বাইরে ভুট্টা বিক্রি করেন। কিন্তু সম্প্রতি ভুট্টা সেঁকার পদ্ধতিতে এনেছেন অভাবনীয় পরিবর্তন। প্রচলিত উনুনের বদলে তিনি সোলার প্যানেল ব্যবহার করছেন ভুট্টা সেঁকার কাজে।

লোহার পাত্রে তিনি রেখেছেন অল্প কয়েকটি জ্বলন্ত কয়লা। সোলার প্যানেলের মাধ্যমে ফ্যান চালিয়ে ওই অল্প কয়লার উপরেই সেঁকে দিচ্ছেন ভুট্টা। এর ফলে উনুনের মতো ধোঁয়ায় ভর্তি হচ্ছে না এলাকা। আবার বজায় থাকছে তাঁর রুটি রোজগার।

তবে এই সোলার প্যানেলটি কিনতে হয়নি সেলভাম্মাকে। সেলকো সোলার লাইট প্রাইভেট লিমিটেড নামের এক সংস্থা। সৌর শক্তি ব্যবহারের দিকে মানুষের সচেতনতা বাড়ানোর জন্যই সেলভাম্মাকে বিনামূল্যে এটি দিয়েছে ওই সংস্থা।

 

প্রচলিত পদ্ধতি ছে়ড়ে সোলার প্যানেল ব্যবহার করে ভুট্টা সেঁকে খুশি সেলভাম্মাও। তিনি বলেছেন, ‘‘উনুনে হাত পুড়ে যাওয়ায় দোকান চালাতে অসুবিধা হচ্ছিল। ওরা এটা দেওয়ায় আমার খুব ভাল হয়েছে।’’

 

আরও পড়ুন: বিয়ের দিনেই ডিভোর্স হল আমদাবাদের এই দম্পতির! জানেন কেন?

(ভারতের রাজনীতি, ভারতের অর্থনীতি- সব গুরুত্বপূর্ণ খবর জানতে আমাদেরদেশবিভাগে ক্লিক করুন।)