• সংবাদ সংস্থা
সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে

ফের ‘গোরক্ষক’দের তাণ্ডব, স্কুটারে মাংস পেয়েই বেদম মার

Nagpur
গোরক্ষকদের তাণ্ডব। ছবি: টুইটারের সৌজন্যে

Advertisement

থামছেই না গোরক্ষকদের দাপাদাপি। প্রধানমন্ত্রীর বক্তব্যেও যে অবস্থার তেমন কোনও পরিবর্তন হয়নি, তা আরও একবার চোখে আঙুল দিয়ে দেখিয়ে দিল বুধবারের নাগপুর।

আরও পড়ুন- বাদ পড়ুক ‘গরু’, কোপ অমর্ত্যকে নিয়ে ছবিতে

স্কুটারে করে গোমাংস নিয়ে যাওয়া হচ্ছে, এই সন্দেহে রাস্তায় ফেলে বেধড়ক পেটানো হল এক ব্যক্তিকে। গুরুতর আহত অবস্থায় ওই ব্যক্তি চিকিৎসাধীন। ঘটনায় অভিযুক্ত চার জনকে আটক করেছে নাগপুর থানার পুলিশ। স্কুটার থেকে পাওয়া মাংস উদ্ধার করে পরীক্ষার জন্য পাঠানো হয়েছে।

ঘটনাটি ঘটেছে মহারাষ্ট্রের নাগপুরের ভারসিঙ্গি এলাকায়। স্কুটারের ডিকিতে করে সব্জি নিয়ে যাচ্ছিলেন স্থানীয় সেলিম ইসমাইল শাহ(৩৬) নামের এক ব্যক্তি। সেই সময়ই তাঁর স্কুটারে গোমাংস রয়েছে এই অভিযোগে সেলিমের উপরে চড়াও হয় চারজনের একটি দল। সেলিমের স্কুটার থামিয়ে রাস্তায় ফেলে বেধড়ক পেটানো হয় তাঁকে। সেলিমের উপর এলোপাথাড়ি লাথি, চড়, কিল, ঘুষি মারতে থাকে দুষ্কৃতীরা। সেলিমের স্ত্রী জানান, শরীরের ভিতরে একাধিক আঘাত পেয়েছেন সেলিম। সূত্রে খবর, ওই চার যুবক স্থানীয় বিধায়ক বাচু কাদুর ‘প্রহর সংগঠন’-এর সদস্য।

মাসখানেক ধরেই দেশের বিভিন্ন প্রান্ত থেকে শিরোনামে উঠে আসছে গোরক্ষক বাহিনীদের তাণ্ডব। গত মাসে গোরক্ষক বাহিনীর হাতে ১৫ বছরের কিশোর জুনেইদের শোচনীয় মৃত্যুর পর নিন্দায় সরব হয়েছে বিভিন্ন মহল। প্রতিবাদের ঝড় উঠেছে দেশজুড়ে। আইন নিজের হাতে না নেওয়ার বার্তাও দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। পাশাপাশি দিন দুয়েক আগেই দেশের হাটে বাজারে গবাদি পশুর কেনা বেচার নিষেজ্ঞার উপরেও তিন মাসের জন্য স্থগিতাদেশ জারি করেছে দেশের সর্বোচ্চ আদালত। কিন্তু এত কিছুর পরেও যে চিত্রটা খুব একটা বদলায়নি সেটাই প্রমাণ হল আরও এক বার।

সবাই যা পড়ছেন

Advertisement

সব খবর প্রতি সকালে আপনার ইনবক্সে
আরও পড়ুন

সবাই যা পড়ছেন

আরও পড়ুন